সহজ ম্যাচ কঠিন করে জিতে জিম্বাবুয়ের সিরিজ জয়

match report 13
Vinkmag ad

265608

সিরিজের প্রথম ম্যাচ জিতে স্বাগতিক শ্রীলঙ্কাকে খানিকটা চমকেই দিয়েছিলো সফরকারী জিম্বাবুয়ে। মাঝের দুই ম্যাচে দুর্দান্ত জয়ে সিরিজে এগিয়েছিল শ্রীলঙ্কা। তবে শেষের দুই ম্যাচ জিতে সিরিজটাই পকেটে পুরে জিম্বাবুয়ে জানান দিলো জয়গুলো মোটেও ‘আপসেট’ নয়। সিরিজের পঞ্চম এবং শেষ ওয়ানডে ৩ উইকেটে জিতে নিয়ে ৩-২ ব্যবধানে সিরিজের মালিক অতিথিরাই। 

হাম্বানটোটায় টসে হেরে প্রথমে ব্যাট করা শ্রীলঙ্কা দল সফরকারী বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে সংগ্রহ করে ৮ উইকেটে ২০৩ রান। জবাবে সহজ জয়ের মঞ্চটাকে কঠিন করে ৩ উইকেট হাতে রেখেই জয় পায় জিম্বাবুয়ে।

হ্যামিলটন মাসাকাদজা আর সিরিজে দুর্দান্ত ফর্মে থাকা সলোমন মিরের ব্যাটে উদ্বোধনী জুটিতেই ৯২ রান তোলে জিম্বাবুয়ে। ৩২ বলে ৪৩ রানের মারকুটে ইনিংস খেলে মিরে সাজঘরে ফিরলেও মাসাকাদজা তুলে নেন নিজের ৭ম ওয়ানডে অর্ধশতক। তারিসাই মুসাকান্দার সাথে দ্বিতীয় উইকেট জুটিতেও মাসাকাদজা গড়েন ৪৫ রানের জুটি। দলীয় ১৩৭ রানে ৯ চার আর এক ছয়ে ৮৬ বলে ৭৯ রান করে ফিরে যান মাসাকাদজা।

265619
শেষ ম্যাচে ৭৩ রানের ইনিংস খেলা মাসাকাদজাই নির্বাচিত হন সিরিজ সেরা হিসেবে।

জয়টা জিম্বাবুয়ের তখন সময়ের ব্যাপার। ঠিক তখনই মাত্র ২৭ রানের ব্যবধানে ৪ উইকেট হারিয়ে বসে সফরকারীরা। ম্যাচের ভাগ্য একটু হলেও কথা বলতে শুরু করে লঙ্কানদের পক্ষে। বল হাতে তিন উইকেট তুলে নেয়া সিকান্দার রাজাই আবির্ভুত হন ত্রাতার ভুমিকায়। তার অপরাজিত ২৭ রানে ১২ ওভার হাতে রেখেই ম্যাচ আর সিরিজ দুটোই জিতে নেয় গ্রায়েম ক্রেমারের দল। আকিলা ধনঞ্জয়া ঝুলিতে পুরেন চার উইকেট।

এর আগে সিকান্দার রাজা আর গ্রায়েম ক্রেমারের স্পিন ঘুর্ণিতে দিশেহারা লঙ্কা দল ২০০ রান পার করে আসেলা গুনারত্নে এবং উইকেটরক্ষক উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান নিরোশান ডিকওয়ালার অর্ধশতকে। ইনিংসে শ্রীলঙ্কার হয়ে সর্বোচ্চ রান করে ৮১ বলে ৫৯ রানে অপরাজিত থাকেন গুনারত্নে (৪ চার)। আর পুরো সিরিজে ৫ ম্যাচে ৩২৩ রান সংগ্রহ করা ডিকওয়ালার ব্যাট থেকে আসে ৫২ রান (৮৬ বল, ৫ চার)। বোলিংয়ে উদ্বোধনী ওভার শুরু করা সিকান্দার রাজা শিকার করেন ৩ উইকেট। কাপ্তান ক্রেমার তুলে নেন দুই উইকেট।

265604
বল হাতে ২১ রানে ৩ উইকেট, ব্যাট হাতে ম্যাচ জেতানো অপরাজিত ২৭ রান! সিকান্দার রাজাকেই ম্যাচ সেরা ঘোষণা করতে দু’বার ভাবতে হয়নি নির্বাচকদের।

বল আর ব্যাট হাতে দলের জয়ে অবদান রাখা সিকান্দার রাজা নির্বাচিত হন ম্যাচসেরা খেলোয়াড় হিসেবে। ৫ ম্যাচে ৫১.৬০ গড়ে ২৫৮ রান করা মাসাকাদজাকে ঘোষণা করা হয় সিরিজ সেরা খেলোয়াড় হিসেবে।

রঙ্গিন পোশাকের খেলায় জয়ী হয়ে বেশ ফুরফুরে মেজাজেই একমাত্র টেস্ট স্বাগতিকদের মুখোমুহি হবে জিম্বাবুয়ে। ১৪ জুলাই থেকে কলম্বোর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে গড়াবে দুই দলের মধ্যকার একমাত্র টেস্টটি।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ডঃ

শ্রীলঙ্কাঃ ২০৩/৮ (৫০ ওভারে) গুনারত্নে ৫৯*, ডিকওয়ালা ৫২, ম্যাথুস ২৪। রাজা ৩/২১, ক্রেমার ২/২৩, ওয়ালার ১/২১

জিম্বাবুয়েঃ ২০৪/৭ (৩৮.১ ওভার) মাসাকাদজা ৭৩, মিরে ৪৩, মুসাকান্দা ৩৭, রাজা ২৭*। ধনঞ্জয়া ৪/৪৭, মালিঙ্গা ২/৪৪

ফলাফলঃ জিম্বাবুয়ে ৩ উইকেট জয়ী।

সিরিজঃ জিম্বাবুয়ে ৩-২ ব্যবধানে জয়ী।

ম্যান অফ দ্যা ম্যাচঃ সিকান্দার রাজা (জিম্বাবুয়ে)।

ম্যান অফ দ্যা সিরিজঃ হ্যামিলটন মাসাকাদজা (জিম্বাবুয়ে)।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

লুইসের শতকে ভারতকে হেসেখেলে হারালো উইন্ডিজরা

Read Next

ভারতীয় টেস্ট দলে হার্ডিক পান্ডে

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
0
Share