খেলতে চাননি সরফরাজ, মিসবাহ বললেন: ‘আমিও তাই করতাম’

সরফরাজ আহমেদ
Vinkmag ad

গোটা ইংল্যান্ড সফরে একাদশে সুযোগ না পাওয়া সরফরাজ আহমেদ শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে সুযোগ পেয়েও খেলতে চাননি। মূলত তিন ম্যাচ টেস্ট সিরিজের পর প্রথম দুই টি-টোয়েন্টিতেও উপেক্ষিত ছিলেন বলেই অনিশ্চয়তা থেকে মাঠে নামতে না চাওয়া। যদিও শেষ পর্যন্ত উইকেটের পেছনে দাঁড়িয়েছেন, ব্যাট হাতে নেওয়ার সুযোগ হয়নি টপ অর্ডারের সাফল্যে।

টেস্ট সিরিজ থেকেই উইকেট রক্ষক ও ব্যাটসম্যান হিসেবে মোহামদ রিজওয়ান ধারাবাহিকভাবে ভালো করেছেন। ফলে অভিজ্ঞ সরফরাজকে একাদশের বাইরেই থাকতে হয়েছে টেস্ট সিরিজের পর প্রথম দুই টি-টোয়েন্টিতেও। শেষ ম্যাচে সরাসরি খেলবেন না বললেও তার প্রতিক্রিয়া ছিল ভিন্ন রকম।

পাকিস্তানের প্রধান কোচ ও নির্বাচক মিসবাহ উল হক এ প্রসঙ্গে জিও নিউজ চ্যানেলকে বলেন, ‘সে খেলতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে ব্যাপারটি এরকম নয়, তবে হ্যা সফরের শেষ ম্যাচ খেলতে বলায় সে প্রতিক্রিয়া ও আশঙ্কা প্রকাশ করেছিল।’

তবে সরফরাজের প্রতিক্রিয়াকে যৌক্তিক বলে সমর্থনও দিচ্ছেন তার এক সময়কার সতীর্থ মিসবাহ উল হক, ‘যদি আমি তার পরিস্থিতিতে থাকতাম আমিও একই রকম অনুভব করতাম। পুরো সফরে না খেলানোর পর শেষ ম্যাচে একজন খেলোয়াড়কে খেলতে বললে তার মধ্যে প্রতিক্রিয়া ও অনিশ্চয়তা ভর করবেই।’

মিসবাহ বলছেন তিনি নিজে, টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক বাবর আজম, ব্যাটিং কোচ ইউনিস খান ও টিম ম্যানেজমেন্ট সরফরাজের সাথে খোলামেলা আলোচনা করেছেন এবং নিশ্চিত করেছেন যে তাকে ভবিষ্যত পরিকল্পনায় রাখা হয়েছে।

পাকিস্তানের প্রধান কোচ ও নির্বাচক যোগ করেন, ‘তার সাথে খোলামেলা আলোচনার পর সে কোন সংশয় ছাড়াই খেলতে রাজি হয়।’

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

ট্রেন্ট বোল্টের চোখে সেরা পাঁচ বোলার

Read Next

করোনা টেস্টে উতরে গেলেন মিঠুন-গিবসন

Total
3
Share