সেমির লড়াই: ওয়ারিয়র্সের ব্যাটিং বনাম জুকসের বোলিং

শিমরন হেটমেয়ার আন্দ্রে ফ্লেচার রাখিম কর্নওয়াল

ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগের এবারের আসরের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছে গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিয়র্স এবং সেন্ট লুসিয়া জুকস। বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে তিনটায় ত্রিনিদাদের ব্রায়ান লারা স্টেডিয়ামে এ ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে।

সিপিএলের গ্রুপ পর্যায়ে দুই দলই ৬টি করে ম্যাচে জয়লাভ করে ১২ পয়েন্ট অর্জন করে সেমিতে স্থান করে নিয়েছে। গ্রুপ পর্যায়ের প্রথম দেখায় ওয়ারিয়র্স জিতলেও দ্বিতীয়বার জুকস জয়লাভ করে। তবে রানরেটে এগিয়ে থাকায় ওয়ারিয়র্স ২ এ এবং জুকস ৩য় হয়েছে।

গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিয়র্সের মূল চালিকা শক্তি তাদের হার্ড হিটিং ব্যাটসম্যান এবং স্পিনাররা। গত সিজনের টপ পারফর্মার ব্রেন্ডন কিংয়ের পাশাপাশি অভিজ্ঞ রস টেইলর আছেন দলে। তবে ওয়ারিয়র্স তাকিয়ে থাকবে এবারে তাদের দুই সফল ব্যাটসম্যান নিকোলাস পুরান ও শিমরন হেটমেয়ারের দিকে।

এই মৌসুমে সেন্ট কিটসের বিপক্ষে সেঞ্চুরিও আছে পুরানের। একই সাথে অভিজ্ঞ স্পিনার ইমরান তাহির ও অধিনায়ক ক্রিস গ্রিনের স্পিনিং যুগল দলের বোলিংকে করেছে আকর্ষণীয়।

অন্যদিকে এবারের মৌসুমে জুকসের কোন ব্যাটসম্যান নিজেদের পুরোপুরিভাবে মেলে ধরতে পারেনি। দলের ব্যাটসম্যানদের ছোট অথচ কার্যকরী ইনিংসগুলোই দলকে এতদূর নিয়ে এসেছে। তবে দলের মূল বৈশিষ্ট্য তাদের বৈচিত্র্যময় বোলিং।

পেসারদের সাথে স্পিনারদের সম্মিলিত প্রয়াসে সফল এবার জুকস। নিউজিল্যান্ডের স্কট কুগেলেইন এবং আফগান মোহাম্মদ নবি দলের সবচেয়ে সফল দুই বোলার। একইসাথে আফগান তরুণ জহির খান ও ওয়েস্ট ইন্ডিয়ান নব্য সেনসেশন জ্যাভেল গ্লেনের বোলিংয়েও ভরসা রাখতে পারে জুকস।

ওয়ারিয়র্সের ব্যাটসম্যানদের সাথে জুকসের বোলারদের লড়াইটা দ্বিতীয় সেমিফাইনালের মূল আকর্ষণ।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

দলের ভারসাম্য নষ্ট করতে চান না এলিস পেরি

Read Next

মিসবাহকে জহির: ‘যেকোন একটা বেছে নাও’

Total
2
Share