ম্যানচেস্টারে ব্যান্টন ঝড়, অতঃপর বৃষ্টি…

টম ব্যান্টন মোহাম্মদ রিজওয়ান

পাকিস্তানের ইংল্যান্ড সফরে কেবল দুই দলের মধ্যেই কি খেলা হচ্ছে? কাগজে কলমে উত্তরটা ‘হ্যা’ বোধক। তবে আক্ষরিক অর্থে পাকিস্তান, ইংল্যান্ড ও বৃষ্টির মধ্যকার ত্রিদেশীয় সিরিজ বললেও কি ভুল হবে? তিন ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথমটি ইংল্যান্ড জিতলেও পরের দুটিতে যে বৃষ্টিই ছিল এগিয়ে, দুটি ম্যাচই হয়েছে ড্র।

গতকাল (২৮ আগস্ট) ম্যানচেস্টারের ওল্ড ট্রাফোর্ডে মাঠে গড়ায় তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথমটি। যথারীতি জয়টা বৃষ্টিরই, টস হেরে স্বাগতিক ইংল্যান্ড ১৬.১ ওভার ব্যাট করার পরই হানা দেয় বৃষ্টি। এরপর থামলে ওভার কমিয়ে খেলা শুরুর প্রস্তুতি নেওয়া যায়নি ভেজা আউটফিল্ডের কারণে। ফলে ম্যাচ পরিত্যাক্ত ঘোষণা করতে বাধ্য হন আম্পায়ার অ্যালেক্স ওয়ার্ফ ও মাইক বার্নস।

বৃষ্টির আগে অবশ্য ব্যাট হাতে ঝড় তোলেন ইংলিশ ব্যাটসম্যান টম ব্যান্টন। যদিও তার ৪২ বলে ৭১ রানের ইনিংসের পরও সুবিধাজনক অবস্থায় ছিলনা স্বাগতিকরা। টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ইনিংসের পঞ্চম বলেই বাঁহাতি স্পিনার ইমাদ ওয়াসিমকে ফিরতি ক্যাচ দিয়ে ফেরেন ওপেনার জনি বেয়ারস্টো (২)। এরপর অবশ্য ডেভিড মালানকে নিয়ে দলকে নিরাপদ অবস্থানের দিকে নেন ব্যান্টন।

দুজনে দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে যোগ করেন ৭১ রান। ভুল বোঝাবুঝিতে মালান ২৩ রান করে রান আউটে কাটা পড়লে ভাঙে জুটি। সেখান থেকে দলকে একাই টেনে নিচ্ছিলেন ব্যান্টন। ১১.২ ওভারে দলীয় ১০০ রানও পূর্ণ হয়। ক্যারিয়ার চতুর্থ টি-টোয়েন্টি খেলতে নেমে প্রথম ফিফটির দেখা পেয়ে যান ব্যান্টন। দ্বিতীয় ওভারের শেষ বলে ব্যক্তিগত ৫ রানে জীবন পাওয়া তরুণ এই ব্যাটসম্যান ফিফটির পর আরও বেশি আক্রমণাত্মক হতে গিয়েই আউট হয়েছেন।

৩৩ বলে ফিফটি ছোঁয়া ব্যান্টন ফিরেছেন ৪২ বলে ৪ চার ৫ ছক্কায় ৭১ রান করে। শাদাব খানের বলে ইমাদ ওয়াসিমকে ক্যাচ দেওয়ার আগে খেলেছেন দুর্দান্ত সব স্লগ সুইপ ও স্কুপ। তার বিদায়ের পর দ্রুতই ভেঙ্গে পড়ে ইংলিশদের টপ ও মিডল অর্ডার। ২ উইকেটে ১০৯ থেকে পাকিস্তানিদের স্পিন ঘূর্ণিতে ১৮ বলের ব্যবধানে ৬ উইকেটে ১২৩ রানে পরিণত হয় ইংল্যান্ড।

ক্রিজে এসে দ্রুত রান তুলতে গিয়েই উইকেট দিয়ে এসেছে ইংলিশ ব্যাটসম্যানরা। অধিনায়ক এউইন মরগানের ব্যাট থেকে আসে ১৪ রান। বৃষ্টিতে খেলা বন্ধ হওয়ার আগে ১৬.১ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে ১৩১ রান তোলে ইংল্যান্ড। সমান দুইটি করে উইকেট শিকার ইমাদ ওয়াসিম ও শাদাব খানের। একটি উইকেট নেন ইফতিখার আহমেদ। সিরিজের বাকি দুই ম্যাচ একই ভেন্যুতে যথাক্রমে ৩০ আগস্ট ও ১ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিত হবে।

 

View this post on Instagram

 

5⃣ sixes & 4️⃣ fours This lad is damn so special, Isn’t he? #ENGvPAK

A post shared by cricket97 (@cricket97bd) on

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

ব্রেইন ক্যান্সারের বিরুদ্ধে লড়ছেন স্টোকসের পিতা

Read Next

চেন্নাই শিবিরে বড় ধাক্কা, খেলবেন না সুরেশ রায়না

Total
2
Share