সিপিএল ও আইপিএলের মাঝে ওয়েস্ট ইন্ডিজ-দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজ

ওয়েস্ট ইন্ডিজ দক্ষিণ আফ্রিকা
Vinkmag ad

সেপ্টেম্বরের ১৯ তারিখ থেকে শুরু হতে চলেছে ফ্র্যাঞ্চাইজি ভিত্তিক টি-টোয়েন্টি লিগের জমজমাট আসর আইপিএল (ইন্ডিয়ান প্রিমিইয়ার লিগ)। আইপিএলে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ক্রিকেটারদের চাহিদা থাকে তুঙ্গে। এই আইপিএলের আগেই দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে খেলার ব্যাপারে আশাবাদী ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

জুলাই-আগস্টে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও দক্ষিণ আফ্রিকার দুইটি টেস্ট ও ৫ টি টি-টোয়েন্টি খেলার কথা ছিল। তবে করোনা ভাইরাসের কারণে তা স্থগিত হয়।

এখন ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজের প্রধান নির্বাহী জনি গ্রেভ এই সিরিজের ব্যাপারে আশাবাদী। সংক্ষিপ্ত সিরিজে হয় ৫ টি-টোয়েন্টি নাহয় ২ টেস্ট খেলবে দুই দল।

তিনি মেসন অ্যান্ড গেস্টস ক্রিকেট শোতে বলেন, ‘আমরা আশা করি দক্ষিণ আফ্রিকা সেপ্টেম্বরে এখানে আসতে পারবে, হয় টি-টোয়েন্টি খেলতে নাহয় টেস্ট খেলতে।’

‘এটা আইপিএলের ওপর নির্ভর করবে। দক্ষিণ আফ্রিকার অনেক টেস্ট ক্রিকেটারের আইপিএলে চুক্তি আছে। যেখানে আমাদের বর্তমান টেস্ট দলের কারো আইপিএল চুক্তি নেই।’, যোগ করেন জনি গ্রেভ।

গ্রেভ আরো বলেন, ‘আমরা আইপিএল চলাকালে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ খেলতে পারব না। ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকা আমাদের তা স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছে। তাদের ক্রিকেটারদের সঙ্গে বোর্ডের কমিটমেন্ট রয়েছে আইপিএলে খেলতে দেবার ব্যাপারে।’

‘সিপিএল শেষ হবে ১০ সেপ্টেম্বর। আমরা খুব বেশি করে আশা করছি এরপর দক্ষিণ আফ্রিকা আসবে। আমরা পূর্নাঙ্গ সফর আয়োজন করতে পারবো, নাকি টেস্ট বা টি-টোয়েন্টি যেকোন একটা খেলতে পারব তা এখন আমরা জানি না।’

উল্লেখ্য, ওয়েস্ট ইন্ডিজ দল এখন ইংল্যান্ডে অবস্থান করছে, স্বাগতিকদের বিপক্ষে খেলছে তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ। ম্যানচেস্টারে চলছে শেষ টেস্ট। ইংল্যান্ড-ওয়েস্ট ইন্ডিজ টেস্ট সিরিজ দিয়েই মাঠে ফিরেছে ক্রিকেট।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

ব্রডের অলরাউন্ড পারফরম্যান্স, চালকের আসনে ইংল্যান্ড

Read Next

‘সেলিব্রাপিল’ করে শাস্তির ভয়ে আছেন ব্রড

Total
18
Share