সাউদাম্পটনে হোল্ডারময় দিনে এগিয়ে সফরকারীরা

জেসন হোল্ডার ওয়েস্ট ইন্ডিজ
Vinkmag ad

১১৭ দিন পর সাউদাম্পটন টেস্ট দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফিরেছে। বেশ কিছু নিয়ম পরিবর্তনের মধ্যে দিয়ে শুরু হওয়া টেস্টটির প্রথম দুইদিনের অর্ধেক নষ্ট করেছে বৃষ্টি ও আলোকস্বল্পতা। নির্ধারিত ১৮০ ওভারের মধ্যে দুই দিনে খেলা হয়েছে মাত্র ৮৭ ওভার। তবে এই সময়ের মধ্যেই স্বাগতিক ইংল্যান্ডকে বিদ্ধস্ত করে এখনো পর্যন্ত এগিয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

জেসন হোল্ডারের ক্যারিয়ার সেরা বোলিংয়ের সাথে চোট কাটিয়ে ফেরা শ্যানন গ্যাব্রিয়েলের গতির ঝড়ে ২০৪ রানেই গুটিয়েছে বেন স্টোকসের দল। জবাবে ২য় দিন শেষে ১ উইকেট হারিয়ে ৫৭ রান সংগ্রহ করেছে ক্যারিবিয়ানরা।

১ উইকেটে ৩৫ রান নিয়ে দিন শুরু করেছিল ইংল্যান্ড। ২০ রানে অপরাজিত ছিলেন ওপেনার ররি বার্নস ও ১৪ রানে জো ডেনলি। আগেরদিন একমাত্র উইকেটটি তুলে নেওয়া গ্যাব্রিয়েলই দ্বিতীয় দিনের শুরুতে আঘাত হানেন। গতকাল (৯ জুলাই) মাত্র ৪ রান যোগ করেই বোল্ড হন ডেনলি। বেশি দূর যেতে পারেননি ২১ তম রান নিয়ে ২৮ তম ইংলিশ ওপেনার হিসেবে ১ হাজার রান পূর্ণ করা ররি বার্নসও।

২০০৭ সালে করা স্যার অ্যালিস্টার কুকের পর কোন ইংলিশ ওপেনারের এক হাজারি ক্লাবে প্রবেশের নজির এটি। তবে গ্যাব্রিয়েলের বলে এলবিডব্লিউর ফাঁদে পড়ে থামতে হয়েছে ৩০ রানে। এরপরের গল্পটা কেবলই ক্যারিবিয়ান অধিনায়ক জেসন হোল্ডারের। লাঞ্চের আগে দুটি ও লাঞ্চের পর চারটি, সব মিলিয়ে শিকার ৬ টি। একে একে ফিরিয়েছেন কিছুটা লড়াইয়ের ইঙ্গিত দেওয়া অধিনায়ক বেন স্টোকস থেকে মার্ক উডকে।

দুইবার জীবন পেয়েও দলের পক্ষে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ৪৩ রানের বেশি করতে পারেননি স্টোকস। ৯৭ বলে ৭ চারে ইনিংসটি থেমেছে হোল্ডারের বলে ডওরিচকে ক্যাচ দিলে। মাঝে জস বাটলার ও শেষদিকে ডম বেস চেষ্টা করেছেন প্রতিরোধের। ৩৫ রান করে হোল্ডারের বলে ডওরিচের হাতেই ধরা পড়েন বাটলার। লেজের ব্যাটসম্যানদের নিয়ে ৩১ রানে অপরাজিত ছিলেন ডম বেস। চা বিরতির আগেই ২০৪ রানে থামে ইংলিশরা।

৪২ রানে ৬ উইকেট নেওয়ার মাধ্যমে ক্যারিয়ারের ৭ম বার ইনিংসে ৫ উইকেট শিকার করেন জেসন হোল্ডার। যা তার ক্যারিয়ার সেরাতো বটেই। ইংল্যান্ডের মাটিতে কোন ক্যারিবিয়ান অধিনায়কের সেরা বোলিং ফিগারও। অন্যদিকে শেষ মুহূর্তে স্কোয়াডে জায়গা পাওয়া গ্যাব্রিয়েলের শিকার ৬২ রান খরচায় ৪ উইকেট। ইংলিশদের প্রথম তিন উইকেটের সাথে সবশেষ সাজঘরে ফেরা অ্যান্ডারসনও তার শিকার।

এদিন ইংলিশ দুই আম্পায়ারের সিদ্ধান্তকে তিনবার ভুল প্রমাণ করান ক্যারিবিয়ান দলপতি জেসন হোল্ডার। বর্তমান টেস্ট অলরাউন্ডার র‍্যাংকিংয়ের শীর্ষে থাকা হোল্ডার নিজের প্রথম শিকারও রিভিউ থেকেই পান।

জবাবে ওপেনার জন ক্যাম্পবেলের উইকেট হারিয়ে ৫৭ রান তুলতেই অন্ধকার নেমে আসে সাউদাম্পটনের এজেস বোলে। যা ম্যাচ পরিচালনার জন্য যথেষ্ট বলে মনে হয়নি দুই আম্পায়ার রিচার্ড ইলিংওর্থ ও রিচার্ড ক্যাটলবরোর কাছে। ফলে নির্ধারিত সময়ের বেশ আগেই দিনের খেলা সমাপ্ত ঘোষণা করতে হয় তাদের।

কিন্তু এর আগে জিমি অ্যান্ডারসন, জফরা আর্চার, মার্ক উডরা নিজেদের গতি আর সুইং বিষে নীল করার সব আয়োজন সাজিয়ে রেখেছিল। কিছুটা দেখেশুনে খেলার মন্ত্রে ফল পেয়েছে ক্যারিবিয়ান শিবির। যদিও দুইবার রিভিউ নিয়ে বেঁচে যাওয়া ক্যাম্পবেলকে (২৮) এলবিডব্লিউর ফাঁদে ফেলে সাজঘরের পথ দেখান ইংলিশদের স্ট্রাইক বোলার অ্যান্ডারসন। ২০ রানে ক্রেইগ ব্রাথওয়েট ও ৩ রানে অপরাজিত আছেন শাই হোপ।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ দ্বিতীয় দিন শেষে

ইংল্যান্ড প্রথম ইনিংসঃ ২০৪/১০ (৬৭.৩ ওভার), বার্নস ৩০, সিবলি ০, ডেনলি ১৮, ক্রাওলে ১০, স্টোকস ৪৩, পোপ ১২, বাটলার ৩৫, বেস ৩১*, আর্চার ০, উড ৫, অ্যান্ডারসন ১০; রোচ ১৯-৬-৪১-০, গ্যাব্রিয়েল ১৫.৩-৩-৬২-৪, জোসেফ ১৩-৪-৫৩-০, হোল্ডার ২০-৬-৪২-৬।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১ম ইনিংসঃ ৫৭/১ (১৯.৩ ওভার), ব্র‍্যাথওয়েট ২০*, ক্যাম্পবেল ২৮, হোপ ৩*; অ্যান্ডারসন ৮-৪-১৭-১, আর্চার ৬-০-২০-০, উড ৩.৩-১-৮-০, স্টোকস ২-১-৬-০।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

হোল্ডারের ক্যারিয়ার সেরা বোলিং, ইংল্যান্ড টিকল ৪০৫ বল

Read Next

দর্শকদের টিকিটের মূল্য ফেরত দিচ্ছে পিসিবি

Total
3
Share