ছেলের ক্যারিয়ার শেষ ভেবে যুবরাজের কাছে জার্সি চেয়েছিলেন ক্রিস ব্রড

যুবরাজ সিং স্টুয়ার্ট ব্রড
Vinkmag ad

২০০৭ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ইংলিশ পেসার স্টুয়ার্ট ব্রডকে ৬ বলে ৬ ছক্কা হাঁকান সাবেক ভারতীয় বাঁহাতি ব্যাটসম্যান যুবরাজ সিং। এক যুগের বেশি সময় পর যুবরাজ সামনে আনলেন ঠিক কী কারণে সেদিন এভাবে চড়াও হয়েছিলেন। ইংলিশ অলরাউন্ডার অ্যান্ড্রু ফ্লিনটফই তাকে তাঁতিয়ে দিয়েছিল বলে জানান যুবরাজ।

দক্ষিণ আফ্রিকার ডারবানের কিংসমিড ক্রিকেট গ্রাউন্ডে সেদিন যুবরাজের ১৪ মিনিট আর ১৬ বলের ঝড়ে রেকর্ড বইয়ে লেখা হয় নতুন অধ্যায়। ব্রডকে টানা ৬ বলে ৬ ছক্কা হাঁকিয়ে মাত্র ১২ বলে ফিফটিতে পৌঁছান বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান, শেষ পর্যন্ত ফ্লিনটফের বলে আউট হওয়ার আগে করেন ১৬ বলে ৫৮ রান।

তার ওই ঝড়ো ইনিংসে ভর করে ভারত পায় ২১৮ রানের বড় পুঁজি। জবাবে ইংলিশদের থামতে হয় ১৮ রান দূরে থেকেই। তবে সব ছাপিয়ে সেদিন আলোচনার মূল বিষয়বস্তু ছিল যুবরাজের ৬ বলে ছয় ছক্কায় হাঁকানো।

সেদিন মূলত কী হয়েছিল জানাতে গিয়ে ৩৮ বছর বয়সী ভারতীয় সাবেক এই তারকা ব্যাটসম্যান বলেন, ‘ফ্রেডি (ফ্লিনটফ) তখন ফ্রেডি হয়েছিল মাত্র। আমার সাথে তার কথা কাটাকাটিও হল, আমিও তাকে উত্তপ্ত কিছু বাক্য ফিরিয়ে দিলাম।’

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ঐ ম্যাচের কয়েক সপ্তাহ আগেই একটি ওয়ানডে ম্যাচে যুবরাজের এক ওভারে ৫ ছক্কা হাঁকিয়েছেন ইংলিশ ব্যাটসম্যান দিমিত্রি মাসকারেনাসে। আর যুবরাজ সেটির আক্ষেপই মিটিয়েছেন ইংল্যান্ডের বিপক্ষেই স্টুয়ার্ট ব্রডকে অসহায় করে দিয়ে। আর এ কারণেই আনন্দটাও বেশি ছিল ভারতীয় ব্যাটসম্যানের,

‘ইংল্যান্ডের বিপক্ষেই ৬ বলে ৬ ছক্কা হাঁকিয়ে বেশ খুশি ছিলাম কারণ কয়েক সপ্তাহ আগেই ওয়ানডেতে আমি দিমিত্রি মাসকারেনহাসের কাছে পাঁচটি ছক্কা খেয়েছি এক ওভারে।’

‘আমি যখন ৬ বলে ৬ ছক্কা হাঁকানো সম্পন্ন করলাম প্রথম দৃষ্টিটা ফ্লিনটফের দিকেই দিয়েছি, এরপর দিমিত্রির দিকে। সে আমার দিকে তাকিয়ে একটি হাসি দিয়েছিল।’

যুবরাজ ৬ বলে ৬ ছক্কা হাঁকানোয় ছেলে স্টুয়ার্ট ব্রডের ক্যারিয়ার শেষ দেখেছিলেন বাবা ক্রিস ব্রড। পরদিন যুবারাজের কাছে একটি স্বাক্ষর সম্বলিত জার্সিও চেয়েছেন স্টুয়ার্ট ব্রডের পিতা ক্রিস ব্রড।

এ প্রসঙ্গে যুবরাজ বলেন, ‘তার (স্টুয়ার্ট ব্রডের) বাবা ক্রিস ব্রড একজন ম্যাচ রেফারি এবং পরের দিন তিনি আমার কাছে এসে বললেন, ‘আপনি আমার ছেলের ক্যারিয়ার প্রায় শেষ করেছেন। এখন আপনার একটা অটোগ্রাফসহ জার্সি দিন আমাকে।’

জার্সিতে দেওয়া অটোগ্রাফে স্টুয়ার্ট ব্রডের জন্য বার্তাও দেন যুবরাজ, ‘আমি তাকে আমার ভারতীয় দলের একটি জার্সি দিই এবং স্টুয়ার্ট ব্রডের জন্য একটা বার্তাও লিখেছি। বার্তাটা ছিল- আমার ওভারেই ৫ ছক্কা হাঁকানোর ঘটনা আছে ফলে আমি বুঝি কষ্টটা কেমন। ইংল্যান্ডের হয়ে ভবিষ্যতের জন্য শুভকামনা।’

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

ইমিউনিটি বাড়াতে যা করছেন রায়না

Read Next

বৈধ হচ্ছে বল টেম্পারিং!

Total
61
Share