চার মাসেও ম্যাচ ফি বুঝে পায়নি ক্যারিবীয় ক্রিকেটাররা, নেপথ্যে বাংলাদেশ!

হোপ পোলার্ড কিং কটরেল লুইস ওয়েস্ট ইন্ডিজ
Vinkmag ad

ওয়েস্ট ইন্ডিজ জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের ম্যাচ ফি পরিশোধ করতে পারছেনা ওয়েস্ট ক্রিকেট বোর্ড। বড় অঙ্কের আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হয়ে দেশটির ঘরোয়া লিগের ক্রিকেটাররাও পাননি সবশেষ টুর্নামেন্টের ম্যাচ ফি। ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ এ জন্য দায়ী করছে ২০১৮ সালে বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কাকে আতিথেয়তা দিয়ে বানিজ্যিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হওয়াকে।

চলতি বছরের জানুয়ারিতে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে হোম সিরিজের তিনটি ওয়ানডে ও তিনটি টি-টোয়েন্টি এবং ফেব্রুয়ারি-মার্চে শ্রীলঙ্কা সফরের তিন ওয়ানডে ও দুই টি-টোয়েন্টির ম্যাচ ফি পাননি ক্যারিবিয়ান ক্রিকেটাররা। জনপ্রিয় ক্রিকেট ওয়েবসাইট ইএসপিএনের এক প্রতিবেদনে উঠে আসে এ তথ্য।

ফেব্রুয়ারি-মার্চে অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অংশ নিয়ে চারটি ম্যাচ খেলেছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ নারী দল। বকেয়া আছে তাদের ঐ চার ম্যাচের ম্যাচ ফিও। তবে বোর্ডের প্রধান নির্বাহী জনি গ্রেভ আশ্বাস দেন শীঘ্রই এই বকেয়া পরিশোধ করা হবে।

গ্রেভ বলেন, ‘ক্রিকেট ওয়েস্ট ইন্ডিজ আর্থিকভাবে কঠিন সময় পার করছে। হ্যাঁ এখনো অনেক বকেয়া আছে তবে আমরা চেষ্টা করছি এই বকেয়াকে অগ্রাধিকার দিয়ে দ্রুত পরিশোধের।’

আর এই আর্থিক সংকটের পেছনে ২০১৮ সালে বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কাকে আতিথেয়তা দিয়ে ক্ষতিগ্রস্থ হওয়াটাই মূল কারণ বলে দাবি করছেন গ্রেভ।

গ্রেভ যোগ করেন, ‘আমরা যখন বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজ আয়োজন করি তখন ২২ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ক্ষতির সম্মুখীন হই। মিডিয়া সত্ব চুক্তি থেকে এক মিলিয়ন ডলারেরও কম পেয়েছি আমরা ঐ দুই সিরিজ থেকে।’

এদিকে করোনা প্রভাবের কারণে ঘরোয়া চারদিনের টুর্নামেন্টটি ৮ রাউন্ড পরই মার্চে বন্ধ করে দেওয়া হয়। ১০ রাউন্ডের এই টুর্নামেন্টে বিজয়ী ঘোষণা করা হয় বারবাডোসকে। বকেয়া আছে ঘরোয়া লিগের ঐ ৮ রাউন্ডের ম্যাচ ফিও। যেখানে প্রত্যেক ক্রিকেটার ম্যাচ ফি বাবদ ১৬০০ মার্কিন ডলার করে পেয়ে থাকে।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

সাকিবের চোখে নিজের সেরা ইনিংসগুলো

Read Next

প্রতিপক্ষের হৃদয় ভেঙে অন্তিম জুটির বীরত্বগাথা

Total
22
Share