হাসপাতালের সরঞ্জামাদি কিনতে লঙ্কান ক্রিকেটারদের অনুদান

শ্রীলঙ্কা
Vinkmag ad

বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাসের প্রভাবে আপাতত স্থগিত প্রায় সব খেলাধুলা। বৈশ্বিক এই ক্রান্তিকালে নিজ নিজ অবস্থান থেকে করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে কাজ করে যাচ্ছে বিভিন্ন অঙ্গনের ক্রীড়াবিদ ও সংস্থাগুলো। পিছিয়ে নেই লঙ্কান ক্রিকেটাররাও। করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে লড়াই করতে জাতীয় হাসপাতালের জন্য প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম কিনতে অবদান রেখেছেন তারা।

শ্রীলঙ্কা জাতীয় ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়রা এবং আইনী পেশার কয়েকজন সদস্য সরঞ্জাম কেনার অনুদানে সাহায্য করেছেন। তারা জাতীয় হাসপাতালের জন্য ভিডিও ল্যারিঙ্গোস্কোপগুলি কেনার ক্ষেত্রে অবদান রেখেছে যা করোনাভাইরাস রোগীদের চিকিৎসা করার জন্য অন্যতম প্রয়োজনীয়।

ক্রিকেটারদের অবদানে কেনা এসব সরঞ্জাম উন্নত বিশ্বের দেশ থেকে আনা হচ্ছে। সরঞ্জামগুলো শ্রীলঙ্কায় পৌঁছানোর পরে জাতীয় হাসপাতালে হস্তান্তর করা হবে। এর আগে দেশটির ক্রিকেট বোর্ড করোনা ভাইরাস ফান্ডে ২৫ মিলিয়ন লঙ্কান রুপি অনুদান দিয়েছিল।

শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটারদের আগেই ব্যক্তিগতভাবে কিংবা সম্মিলিতভাবে অন্যান্য দেশের ক্রিকেটাররাও অবদান রেখেছেন দুর্যোগপূর্ণ সময়ে অন্যের পাশে দাঁড়াতে। ভারতীয় সাবেক ক্রিকেটার গৌতম গম্ভীর অনুদান হিসেবে ৫০ লাখ রুপি দিয়েছেন করোনা চিকিৎসার প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতি কেনার জন্য। পাকিস্তানি আলরাউন্ডার শহীদ আফ্রিদিও নিজের প্রতিষ্ঠিত শহীদ আফ্রিদি ফাউন্ডেশনের তরফ থেকে করোনা প্রতিরোধী কার্যক্রম ও নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসপিত্র সরবরাহ করেছেন গরীব, অসহায়দের।

এদিকে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের ২৭ সদস্য নিজেদের চলতি মাসের বেতনের অর্ধেক করে দান করেছেন করোনা ভাইরাস প্রতিহত কাজের জন্য। যার আর্থিক পরিমান দাঁড়ায় ৩০ লাখ ১৫ হাজার টাকা। জাতীয় দলের চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটারদের বাইরে এই তহবিলে অবদান রেখেছেন ১০ ক্রিকেটার। যারা বোর্ড থেকে সারাবছর বেতন পান না, নির্দিষ্ট সিরিজে খেলার সুবাদে সংশ্লিষ্ট মাসে বোর্ড থেকে বেতন পান।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

‘স্পেশাল থ্যাংক্স টু খান সাহেব’

Read Next

নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য লিটন-সঞ্চিতার উদ্যোগ

Total
15
Share