বিসিবিও হাঁটল ‘রিমোট ওয়ার্কিং পলিসি’র’ পথে

বিসিবি লোগো
Vinkmag ad

করোনা ভাইরাসের দরুন সারা বিশ্বে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। বিভিন্ন অফিস আদালতের স্বাভাবিক কর্মকান্ড ব্যহত হচ্ছে। ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকা, ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড তাদের কর্মকর্তাদের গৃহে থেকে কাজ করতে বলেছে আগেই। এবার এই ‘রিমোট ওয়ার্কিং পলিসি’ অনুসরণ করলো বিসিবিও।

গত ১৯ মার্চ সাংবাদিকদের বিসিবিতে আসতে বা না আসতে কোন পরামর্শ আছে কিনা জানতে চাইলে নাজমুল হাসান পাপন বলেছিলেন, ‘আমি যদি বলি তো আসবেন, আর কারো যদি হয় (করোনা) তো বলবেন আমার জন্য হয়েছে। আর আমি যদি বলি আসবেন না তাহলে বলবেন আমাদের ঢোকা নিষিদ্ধ করেছে।’

সেদিন বাংলাদেশে সবধরণের ক্রিকেট খেলা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা নাজমুল হাসান পাপন আরো বলেছিলেন, ‘সকলের সঙ্গে আলোচনা করে যেটা সঠিক মনে হয়েছে সেই সিদ্ধান্ত নিয়েছি। প্রথম দিকে মনে হয়েছিল অনেকেই (খেলোয়াড়, ক্লাব) খেলতে চাচ্ছিল। এখন পরিস্থিতি দ্রুত বদলাচ্ছে। যত সময় যাচ্ছে তত ভিন্ন মতও আসছে। সবকিছু বিবেচনা করে আমরা যেটা সিদ্ধান্ত নিয়েছি যে ক্রিকেটের সব খেলা আপাতত স্থগিত। পরবর্তী ঘোষণা না আসা পর্যন্ত।’

আজ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তি দিয়ে বিসিবি জানিয়েছে বিসিবির হয়ে যারা কাজ করেন তারা যেনো গৃহে থেকে কাজ করেন। যদিও ভিন্নতাও আছে। যেসব কাজ গৃহে থেকে করা সম্ভব নয় সেগুলো করতে কর্মকর্তাদের যেতে হবে বিসিবি অফিসে।

আজ (২১ মার্চ) মিরপুরে বিসিবি কার্যালয়ে সাংবাদিকদের বিসিবি প্রধান নির্বাহী নিজাম উদ্দিন চৌধুরী সুজন বলেন, ‘এটা আগামীকাল (২২ মার্চ)  থেকে কার্যকর হবে। ইতোমধ্যে আমরা আমাদের বিভাগের ম্যানেজারদের সাথে কথা বলেছি। বোর্ডের একটা নির্দেশনা সবাইকে দিয়ে দেওয়া হয়েছে। যতটুকু সম্ভব, আমাদের পরিচালনার যে কাজগুলো থাকবে, সেগুলো আমরা সীমিত করার চেষ্টা করব। এর মধ্যে কোনো জরুরি কাজ যদি চলে আসে তাহলে অফিসে আসতে হবে।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

ইংল্যান্ড ও ওয়েলসে ২৮ মে’র আগে কোন ক্রিকেট নয়

Read Next

রিমোট ওয়ার্কিং পলিসির আগে বিসিবির সচেতনতা কার্যক্রম

Total
14
Share