করোনা ইস্যুতে মাশরাফি-মুশফিকদের বার্তা

মুশফিকুর রহিম মাশরাফি মর্তুজা
Vinkmag ad

করোনা ভাইরাস সংক্রমণের ভয়ে থমকে গেছে পুরো বিশ্ব। জাতীয় দলের সদ্য বিদায়ী অধিনায়ক ও নড়াইল-২ আসনের সংসদ সদস্য মাশরাফি বিন মর্তুজা এবং জাতীয় দলের অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম এই ইস্যুতে দিয়েছেন সতর্ক বার্তা। মাশরাফি আবার নড়াইলে উদ্বোধন করেন বিনা মূল্যে চিকিৎসা সেবার।

গতকাল (১৭ মার্চ) বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষ্যে নড়াইল সদর হাসপাতালে বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবার উদ্বোধন করতে গিয়ে দেওয়া বক্তব্যে করোনা সতর্কতায় মাশরাফি বলেন, ‘ভয়টা ছড়িয়ে পড়েছে সারাবিশ্বে আপনারা দেখছেন। সতর্ক থাকতে হবে। বাসায় সবাইকে সতর্ক করতে হবে আমি আশা করি আপনারা করবেন। সচেতনতায় এটা প্রতিরোধ করা সম্ভব। আমি আশা করবো নড়াইলের আমরা প্রত্যেকে এ ব্যাপারে সতর্ক থাকবো। পরিশেষে সবাই নিরাপদ থাকুক এটাই দোয়া করছি কামনা করছি।’

এদিকে অন্যান্য খেলাধুলার মত ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের দ্বিতীয় রাউন্ড স্থগিত হয়েছে দিন দুয়েক আগে। পরিস্থিতি ক্রমশ অবনতির দিকে ঝুঁকছে বলে পরের রাউন্ডগুলো নিয়েও আছে অনিশ্চয়তা। খেলা স্থগিত বলে আবাহনী লিমিটেডে অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম নিজের ও পরিবারের সচেতনতায় আপাতত বাসাতেই অবস্থান নিয়েছেন। শুধু নিজে সচেতন নয়, ভক্ত-সমর্থক থেকে শুরু করে দেশবাসীর সচেতনতার লক্ষ্যে মুশফিক নিজের ফেসবুক পেজে শেয়ার করেছেন ভিডিও বার্তাও।

শেয়ার করা ভিডিও বার্তায় মুশফিক বলেন, ‘করোনা ভাইরাস বা কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হয়েছে প্রায় দু লাখের বেশি মানুষ। বিভিন্ন দেশের মধ্যে যোগাযোগ ব্যবস্থা বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে বিভিন্ন দেশের ঘরোয়া ও আন্তর্জাতিক সব খেলাধুলা। অন্যান্য দেশের মত বাংলাদেশেও কয়েকজনকে করোনা ভাইরাস আক্রান্তে চিহ্নিত করা হয়েছে। এবং করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত একজনের মৃত্যুও হয়েছে। করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে দুটি বিষয় খুবই গুরুত্বপূর্ণ, এক ব্যক্তিগত পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা, হাত ঘন ঘন সাবান পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলতে হবে। দুই সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা অর্থাৎ খুব জরুরী না হলে ভীড় বা জনসমাগম এড়িয়ে চলা।’

‘বিদেশ থেকে আসা প্রবাসী ভাই বোনদের নিকট অনুরোধ আপনারা নিজের পরিবার ও দেশের সবার সুস্থতার জন্য কমপক্ষে ১৪ দিনের হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকুন। মনে রাখবেন আপনি শুধু আপনার জন্য নয়, আপনার সন্তান , পরিবার, আত্মীয় স্বজন পারা প্রতিবেশী এবং দেশের মানুষের জন্য নিজেকে সচেতন রাখবেন। আর দয়া করে এখন কেউ এক সাথে বাইরে ঘুরতে বের হবেন না।’

‘এ সময় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যেকোন তথ্যের ব্যাপারে সতর্ক থাকবেন। কারণ অনেকে বিভিন্নভাবে ভুল অথবা মিথ্যা তথ্য ছরাতে পারে। গুজবে কান দিবেন না। আমি নিজে এবং পরিবারের সচেতনতার জন্য এখন বাসায় অবস্থান করছি। খুব জরুরী প্রয়োজন ছাড়া বাইরে বের হচ্ছিনা। যতটুকু সম্ভব সচেতন থাকার চেষ্টা করছি। নিজে সুস্থ থাকুন ও অন্যকেও সুস্থ থাকার সহযোগীতা করুন। মনে রাখবেন আমার হাতেই আমার সুরক্ষা।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

কোচ উলমারের মৃত্যুবার্ষিকীতে ইউনুস-ইনজামামদের আবেগী বার্তা

Read Next

‘বেঁচে থাকলে অনেক ক্রিকেট খেলতে পারবো’

Total
245
Share