‘শুধু মুশফিকের বেলায় বাড়ির লোক কান্নাকাটি করবে?’

নাজমুল হাসান পাপন জালাল ইউনুস বিসিবি

বাংলাদেশের পাকিস্তান সফর নিয়ে জল কম ঘোলা হয়নি। অনেক জল্পনা-কল্পনার পর নিশ্চিত হয় বাংলাদেশের পাকিস্তান সফর, সেটাও আবার তিন ধাপে। নিরাপত্তা ইস্যু দেখিয়ে তিন ধাপেই পাকিস্তান যেতে অস্বীকৃতি জানান মুশফিকুর রহিম। তবে শেষ ধাপে মুশফিককে পেতে চায় বিসিবি (বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড)।

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ইনিংস ব্যবধানে টেস্ট ম্যাচ জেতার পর পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান শেষে গণমাধ্যমের মুখোমুখি হন বিসিবি সভাপতি। সেখানে মুশফিক পাকিস্তানে যাবেন কিনা সেই প্রশ্ন করা হয় বিসিবি সভাপতিকে।

উত্তরে বিসিবি বস বলেন, ‘এখন পর্যন্ত আমাকে বা অন্য কাউকে ও (মুশফিক) এই ব্যাপারে কিছু জানায়নি। তবে আমরা আশা করছি যে ও যাবে। সে শুধু না, যাকেই সিলেক্ট করা হবে সেই যাবে। প্রত্যেক চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটারেরই যাওয়া উচিৎ। এটা আমরা মনে প্রাণে বিশ্বাস করি। আমি ব্যক্তিগতভাবে যেটা মনে করি একজন ক্রিকেটারকে দেশের কথাও ভাবতে হবে, শুধু নিজের কথা ভাবলে হবে না। নিজের কথা ভাবতে হবে, পরিবারও গুরুত্বপূর্ণ; তবে সবার আগে দেশ। এই কথাটা সবার মাথায় রাখতে হবে।’

বিসিবির চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটার মুশফিকুর রহিম। সেই হিসাবে বিসিবি চাইলে যেতেই হবে মুশফিককে। এমনটি কাউকে বলে দেবার কথা নয় বলে মনে করেন বিসিবি সভাপতি। তিনি মনে করেন এটি সব ক্রিকেটারই জানেন।

‘এটা আজ পর্যন্ত কাউকে কোন দেশ বলে নাই। তবে এটা সবাই জানে। তবে আপনি যেমনটা বললেন যদি মনে হয় বলতে হবে তাহলে বলে দেবো যে, কন্ট্রাক্টেড প্লেয়ারের দেশের খেলা থাকলে আর তাকে সিলেক্ট করা হলে খেলতে হবে। এটা যে বলতে হয় প্লেয়ারদের এমনটা আমার মাথায় কখনো আসেনি। আমার ধারণা ছিল এটা সবাই জানে।’

নাজমুল হাসান পাপন মুশফিকুর রহিম
ছবিঃ বিসিবি/ রতন গোমেজ

পাকিস্তান ইস্যুটা একটু ভিন্ন হলেও নাজমুল হাসান পাপন মনে করেন মুশফিকের যাওয়া উচিৎ। তার সব সতীর্থ, বিশেষ করে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ পাকিস্তানে গেছে বলে এমনটি মনে করেন তিনি। যদিও তিনি বলে রেখেছেন কাউকে জোর করবেন না যেতে।

‘ঠিক আছে, একটু ভয় ছিলো। আমাদেরও ভয় ছিলো। যারা গেছে তাদের ভয় ছিলো না? কিন্তু লাস্ট ট্রিপটার পরে, আমাদের ওরা খেলে আসছে না? তার (মুশফিকুর রহিম) বাড়ির লোকও তো খেলে আসছে। আমি বলতে চাচ্ছি, রিয়াদের কিছু হলে কিছু হবে না। শুধু ওর বেলায় বাড়ির লোক কান্নাকাটি করবে? রিয়াদের কাছ থেকে শুনতে পারে যে কি হয়েছে। বাকি সতীর্থদের কাছ থেকে শুনতে পারে, আমাদের কাছ থেকে শুনতে পারে। পাকিস্তান একটা ভিন্ন ইস্যু, আমি আগে থেকেই বলে এসেছি পাকিস্তান সফরের জন্য আমি কাউকে জোর করবো না। দেখি সবার সঙ্গে কথা বার্তা বললে তারপর মনে হয় ওর যাওয়া উচিৎ।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

মুমিনুল চান সাকিবও দলে আসুক!

Read Next

মাঠে সবাইকেই ঝাড়ি মারেন মুমিনুল!

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
8
Share