ডোমিঙ্গো বললেন আদর্শ নয়, আইডিয়া নেই মুমিনুলের

রাসেল ডোমিঙ্গো মুমিনুল হক
Vinkmag ad

অনিশ্চয়তার দোলাচলে থাকা পাকিস্তান সিরিজ নিশ্চিত হয়েছে তিন দফায়। একবার পাকিস্তান সফরে যেতে দ্বিধায় থাকা বাংলাদেশ তিন মাসে তিনবার সফর করবে পাকিস্তান। গত মাসের শেষদিকে টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলে আসা বাংলাদেশ দেশ ছাড়ে সিরিজ শুরুর মাত্র একদিন আগে। এদিকে ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হওয়া রাওয়ালপিন্ডি টেস্টের দুদিন আগে আগামীকাল দেশ ছাড়বে টাইগাররা। টি-টোয়েন্টির মত টেস্টের আগেও নেই কোন প্রস্তুতি ম্যাচ।

টেস্টের মত গুরুত্বপূর্ণ ফরম্যাটে দেশের বাইরে অন্তত ৭-৮ দিন আগে যাওয়ার পক্ষে কোচ রাসেল ডোমিঙ্গো। প্রস্তুতি ম্যাচ না থাকাকে সোজা কথায় আদর্শ নয় বলে জানিয়ে দিলেন টাইগার কোচ। এদিকে কাপ্তান মুমিনুল হক বলছেন এসবের নিয়ন্ত্রণ তার হাতে নেই। ফলে যতটুক প্রস্তুতি নিয়ে যাওয়া সম্ভব তা দিয়ে করতে চান লড়াই। রাওয়ালপিন্ডির উইকেট সম্পর্কে কোন ধারণা নেই বলেও জানান টাইগার কাপ্তান।

প্রস্তুতি ম্যাচ না থাকাটা আদর্শ নয় উল্লেখ করে রাসেল ডোমিঙ্গো বলেন, ‘এটা আদর্শ নয় (প্রস্তুতি ম্যাচ না থাকা)। আপনি অবশ্যই চাইবেন টেস্ট ম্যাচের আগে অন্তত ৭-৮ দিন আগে ওখানে যেতে। যাতে একটি ওয়ার্ম আপ ম্যাচ ও অন্তত দুইদিন অনুশীলন করতে পারেন। আমাদের জন্য এটা ভালো প্রস্তুতি নয় কিন্তু এ ব্যাপারে আমাদের করণীয় কিছু নেই।’

‘ছেলেরা এখানেই খেলছে এবং অনুশীলন করছে। আমরা বুধবার সকালে ওখানে পৌঁছাবো এবং বৃহস্পতিবার অনুশীলন করে শুক্রবার ম্যাচ খেলবো। সুতরাং এটা কোনভাবেই ভালো প্রস্তুতি হতে পারেনা।’

এদিকে প্রস্তুতি ম্যাচ না থাকা সম্পর্কে কাপ্তান মুমিনুল বলছেন তার নিয়ন্ত্রণের বিষয় নয় বলে চান না মন্তব্য করতে, ‘দেখেন এটাতো (ওয়ার্ম আপ ম্যাচ থাকা না থাকা) আমার হাতেও নেই। কঠিন, এটা নিয়ে মন্তব্য করা কঠিন। কারণ যেহেতু এটা আপনার হাতে নেই নিয়ন্ত্রণটা। আমি একা, অনেকটা আবহাওয়ার মত। আমার কাছে যা আছে তা নিয়েই আমার যেতে হবে।’

রাওয়ালপিন্ডির উইকেট সম্পর্কে ধারণা নেই বলে সোজা উত্তর টাইগার দলপতির, ‘যুদ্ধে যাওয়ার আগে যেমন পরিস্থিতি হয় কিছু করার থাকেনা। এধরনের পরিস্থিতিতে নিজেকে যতটুকু মানিয়ে নেওয়া যায় আরকি। আগে থেকে ওরকম ব্যাকফুট বা নেগেটিভ না হওয়াই ভালো আমার কাছে মনে হয়। আমার কোন আইডিয়াই নাই (রাওয়ালপিন্ডির উইকেট সম্পর্কে)।’

টি-টোয়েন্টি ৩-৪ ঘন্টার ম্যাচ ফলে নিরাপত্তা ইস্যুতে খুব বেশি চাপ নিতে হয়নি ক্রিকেটারদের। কিন্তু টেস্ট ম্যাচ পাঁচ দিনের বলেই যত শঙ্কা, নিরাপত্তা শঙ্কা মাথায় নিয়ে এত লম্বা সময় মাঠের ক্রিকেটে মনোযোগ দিতে সমস্যা হবে কিনা জানতে চাওয়া হয় কোচ-অধিনায়ক দুজনের কাছেই। দুজনেই বলছেন মাঠে ঢুকলে এসব চিন্তা থাকবে দূরেই।

রাসেল ডোমিঙ্গো বলেন, ‘সব ঠিকঠাক থাকতে যাচ্ছে। যখন আপনি মাঠে যাবেন, এটা স্বাভাবিক একটা ক্রিকেট ম্যাচ। আপনি ড্রেসিং রুমে থাকছেন, ডাইনিং হলে থাকছেন। তো আপনি যখন মাঠে থাকছেন এটা ব্যাপার না।’

টাইগার কাপ্তানের ভাষ্য, ‘আমার কাছে মনে হয়না কোন টাফ হবে। আপনারা হয়তো একটু…জানিনা আমার কাছে মনে হয়েছে আপনি যদি একবার মাঠে ঢুকে যান তাহলে হয়তো অন্য কিছু লাগবেনা এরকম কিছু।’

নাজমুল হাসান তারেক

Read Previous

লিটনের ব্যাটে চড়ে পরাজয় এড়ালো নর্থ জোন

Read Next

‘মুশফিক ভাই অবশ্যই খেলবে’

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Total
21
Share