আরো এক সুপার ওভার, নিউজিল্যান্ডের আরো এক পরাজয়

টিম সাউদি নিউজিল্যান্ড
Vinkmag ad

সুপার ওভারে গড়ানো ম্যাচ মানেই যেন নিউইল্যান্ডের হার অবধারিত। ভারতের বিপক্ষে চলতি টি-টোয়েন্টি সিরিজেই সবশেষ দুই ম্যাচেই ফল পেতে অপেক্ষা করতে হয়েছে সুপার ওভার পর্যন্ত। দুবারই জয়ী দলের নাম ভারত, আজ (৩১ জানুয়ারি) ওয়েলিংটনে নিউজিল্যান্ড ইনিংসের শেষ দিকের দৃশ্য দেখলে মনে হবে তারা বুঝি সুপার ওভারকেই আপন করে নিয়েছে।

শেষ ওভারে জয়ের জন্য দরকার মাত্র ৭ রান হাতে উইকেট ৭ টি। ক্রিজে ছিলেন অভিজ্ঞ রস টেইলর ও ৫৭ রান নিয়ে সেট ব্যাটসম্যান টিম সেইফার্ট। কিন্তু শারদুল ঠাকুরের করা শেষ ওভারে লন্ডভন্ড নিউজিল্যান্ড, হাতের মুঠোর ম্যাচ গড়ায় সুপার ওভারে। ২০ তম ওভারের প্রথম বলেই ফিরে যান টেইলর, পরের বলে চার মেরে প্রয়োজনীয় রান কমিয়ে তিনে নিয়ে আসেন ডারিল মিচেল।

শেষ চার বলে দরকার মাত্র তিন রান হাতে ৬ উইকেট। এমন সমীকরণও মেলাতে ব্যর্থ সেইফার্ট-স্যান্টনাররা। তৃতীয় বলে রান আউটে কাটা পড়েন ৩৯ বলে ৪ চার ৩ ছক্কায় ৫৭ রান করা সেইফার্ট। চতুর্থ বলে নতুন ব্যাটসম্যান স্যান্টনার নেন এক রান, ম্যাচ হয় টাই। জয়ের জন্য শেষ দুই বলে প্রয়োজন মাত্র ১ রান অথচ পরপর দুই বলেই ফিরেছেন মিচেল ও স্যান্টনার। ম্যাচ গড়ায় সুপার ওভারে।

কিন্তু সুপার ওভার মানেই যে নিউজিল্যান্ডের সর্বনাশ! সুপার ওভারে ১ উইকেট হারিয়ে কিউইরা তুলতে পারে ১৩ রান। জবাবে প্রথম বলেই ছক্কা হাঁকিয়ে শুরু করেন লোকেশ রাহুল, পরের বলেও চার। শেষ চার বলে ৪ রান প্রয়োজন ভারতের, লোকেশ রাহুল ফিরে গেলেও কাপাত কোহলির ব্যাটে চড়ে ১ বল আগেই জয়ের বন্দরে পউছে যায় ভারত।

এর আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে মনীশ পান্ডের ফিফটিতে ভর করে ৮ উইকেটে ১৬৫ রানের মাঝারি পুঁজি পায় ভারত। ৩৬ বলে ৩ চারে অপরাজিত ৫০ রানের ইনিংস খেলেন পান্ডে। এছাড়া লোকেশ রাহুলের ব্যাট থেকে আসে ২৬ বলে ৩৯ রান। কাপ্তান কোহলি করতে পারেন ৯ বলে ১১ রান। শেষদিকে ১৫ বলে ২০ রানের ইনিংস খেলেন শারদুল ঠাকুর। কিউইদের হয়ে সর্বোচ্চ তিনটি উইকেট নেন ইশ সোধি, দুটি শিকার বেনেটের। একটি করে নেন সাউদি, কুগেলেইনজ ও স্যান্টনার।

জবাবে শুরুতেই মার্টিন গাপটিলের উইকেট হারালেও কলিন মুনরো ও সেইফার্টের ৭৪ রানের জুটিতে সহজ জয়ের দিকেই এগোচ্ছিল নিউজিল্যান্ড। ৪৭ বলে ৬৪ রান করে রান আউটে কাটা পড়েন মুনরো। কিন্তু টেইলরকে নিয়ে জয়ের বন্দরেই প্রায় পৌঁছে যান সেইফার্ট। যদিও শারদুল ঠাকুরের শেষ ওভারের রোমাঞ্চে সঙ্গী হয় আরও একটি হতাশাময় দিনের। এই জয়ে সিরিজে ৪-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল ভারত। আগামী ২ ফেব্রুয়ারি মাউন্ট মাউঙ্গুনাইয়ে অনুষ্ঠিত হবে শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচটি।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

ফজলে রাব্বির সেঞ্চুরির পর শফিউলের তোপে বিপাকে নর্থ জোন

Read Next

কোহলিদের নির্বাচকদের নির্বাচিত করার কমিটি ঘোষণা

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
9
Share