যে কারণে চারদিনের টেস্ট ম্যাচের বিরুদ্ধে মিসবাহ

misbah
Vinkmag ad

২০২৩ সালে চারদিনের টেস্ট শুরুর পরিকল্পনা আইসিসির। চারদিনের টেস্ট নিয়ে বেশ উৎসাহী আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের অভিভাবক সংস্থাটি। তাই ২০২৩ সাল থেকেই পাঁচদিনের টেস্ট একদিন কমিয়ে চারদিন করতে কাজ করছে। এ নিয়ে এখন বিতর্কের শেষ নেই। কিংবদন্তী শচীন টেন্ডুলকার, রিকি পন্টিং, স্টিভ ওয়াহ, ভিরাট কোহলি, ক্রিস গেইল, জো রুট, বেন স্টোকসদের পর আইসিসির এই পরিকল্পনার বিপক্ষে এবার কথা বললেন পাকিস্তানের বর্তমান কোচ ও সাবেক অধিনায়ক মিসবাহ-উল-হক।

চারদিনের টেস্ট ম্যাচের বিপক্ষে কেন মিসবাহ? কারণ হিসেবে তিনি প্রথমেই উল্লেখ করলেন- পেস বোলারদের ইনজুরির বিষয়টি। চারদিনের ম্যাচ হলে প্রতিদিন ৯০ থেকে বাড়িয়ে নূন্যতম ৯৮ ওভার খেলা হবে। তাতে সব প্রেশার পড়বে পেসারদের কাঁধে।

পেস বোলারদের ইনজুরির বিষয়টি টেনে চারদিনের টেস্ট নিয়ে পাকিস্তানের কোচ মিসবাহ-উল-হকের বক্তব্য,

‘একজন পেস বোলার রুটিন অনুযায়ী এক ইনিংসে ১৭-১৮ ওভার বল করে থাকে কিন্তু চারদিনের টেস্ট হলে ২০-২৫ ওভার বল করতে হবে, বোলিংয়ে তাদের চাপ বাড়বে। এতে করে পেস বোলারদের ইনজুরিতে পড়ার ঝুঁকি আরও বাড়বে।’

262918

নির্দিষ্ট রুটিনের বাহিরে বল করলে পেস বোলার’রা তাদের গতি হারাবে; বোলারদের অসুবিধা বেশি দেখা দিবে। দর্শকদের হতাশ করবে পেসাররা। মিসবাহ বলেন,

‘দর্শক টেস্ট ম্যাচে আসে পেস বোলারদের গতি দেখতে। মিচেল স্টার্ক, নাসিম শাহ, প্যাট কামিন্স, জসপ্রীত বুমরাহ’র মতো বোলারদের দেখতে আসতে চায়। যদি ওভার বাড়ানোর জন্য আরও ওভার বোলিং করতে হয় তবে তারা বোলিংয়ে গতি হারাবে।’

একদিনে অনেকসময় ৯০ ওভার বল করাও সম্ভব হয় না সেখানে ৯৮ ওভার কিভাবে বল করবে বোলাররা, এ নিয়েও নিজের মতামত জানালেন মিসবাহ,

‘পাকিস্তান, ভারত বা বাংলাদেশের মতো দেশগুলিতে ঘরোয়া ক্রিকেট মৌসুম শীতকালে হয়। সাধারণত এক দিনে তখন ৯০ ওভারও বল করাও সম্ভব হয় না। সুতরাং ওভার বাড়িয়ে দিলে কী হবে? এর চেয়ে বেশি ঘটবে? চারদিনের টেস্ট কীভাবে পরিচালিত হবে সে সম্পর্কে অনেক অস্পষ্টতা এখনও রয়েছে।’

283184

আন্তর্জাতিক টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপে বাধ্যতামূলকভাবে ৪ দিন খেলার বিধান চালু যাচ্ছে আইসিসি। তাদের লক্ষ্য ২০২৩ সালের টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ থেকে এই বিধান চালু করা। সাধারণ নিয়মে টেস্ট ক্রিকেট পাঁচ দিনের হলেও তা চার দিনে করার কথা ভাবছে বিশ্ব ক্রিকেটের নির্বাহী সংস্থা- আইসিসি। সাধারণত প্রথম শ্রেণির ম্যাচ হয় চারদিনের।

ভারতের অধিনায়ক ভিরাট কোহলি, কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকার এবং সাবেক দুই অজি অধিনায়ক রিকি পন্টিং এবং স্টিভ ওয়াহ সকলেই এই চারদিনের টেস্টের বিরুদ্ধে কথা বলেছেন।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

বোর্ড সভায় যেসকল এজেন্ডা থাকছে

Read Next

বিশ্বকে নিজেদের সামর্থ্য দেখাতে চান আকবর আলি

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
6
Share