বিপিএল খেলতে আসা শেহজাদ বাংলাদেশকে পাকিস্তান যেতে বললেন

আহমেদ শেহজাদ
Vinkmag ad

চলতি বিপিএলে ঢাকা প্লাটুন বিদেশি কোটায় পাকিস্তানিদের উপরই বেশি নির্ভর করেছে। চোটে পড়ে দেশে ফিরে যাওয়া আফ্রিদি ও বাঁহাতি পেসার ওয়াহাব রিয়াজের পরিবর্তে দলে নিয়েছে আহমেদ শেহজাদ ও ফাহিম আশরাফকে। এই দুই পাকিস্তানি দলটির সাথে যোগ দিয়েছেন সিলেট পর্ব থেকেই। আগামীকাল (৩ জানুয়ারি) খুলনা টাইগার্সের বিপক্ষে ম্যাচ সামনে রেখে অনুশীলন শেষে আহমেদ শেহজাদ বলেন প্লাটুনের তরুণ-সিনিয়র ক্রিকেটার কম্বিনেশনটা মনে ধরেছে তার, বাংলাদেশের পাকিস্তান সফর নিয়ে ব্যক্ত করেছেন নিজের মন্তব্য।

তামিম ইকবালের মত দেশসেরা ওপেনারের সাথে অন্যতম সেরা অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা আছেন ঢাকা প্লাটুনে। সাথে জাকের আলি, হাসান মাহমুদ, মেহেদী হাসানের মত তরুণদের সংমিশ্রণে বেশ দুর্দান্ত দলই বলা যায় প্লাটুন শিবিরকে। বিদেশি কোটায় থিসারা পেরেরা, শহীদ আফ্রিদি, ওয়াহাব রিয়াজরাতো ছিলেনই।

সিনিয়র-জুনিয়র কম্বিনেশনের প্রশংসা করে দলের সাথে যোগ দেওয়া শেহজাদ বলেন, ‘আমি মনে করি হাসান মাহমুদসহ তরুণ যারা আছে তাদের নিয়ে বেশ ভালো কম্বিনেশন। তাদের অনেক কিছু শেখার সুযোগ রয়েছে। সিনিয়র ক্রিকেটার তামিম ও মাশরাফি মিলিয়ে দুর্দান্ত কম্বিনেশন। যারা জুনিয়রদের দেখভাল করবে, অনুপ্রেরণা জুগাবে এবং সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়ে সফলতার পথ বাতলে দেবে।’

স্থানীয় তরুণ ক্রিকেটাররা বিদেশিদের কাজ সহজ করে দেয় উল্লেখ করে শেহজাদ যোগ করেন, ‘আমি মনে করি এটা সহজ যেকোন বিদেশির জন্য দলে এমন তরুণ ক্রিকেটার থাকা। হ্যা আমি এসেছি, নিজকে প্রস্তুত বলে মনে করছি লড়াইয়ের জন্য। নিজের সর্বোচ্চটা দিয়ে দলের জন্য কিছু করতে চেষ্টা করবো ইন শা আল্লাহ।’

এদিকে বাংলাদেশের পাকিস্তান সফর নিয়ে দফায় দফায় হচ্ছে জল ঘোলা। নিরাপত্তা ইস্যুতে কেন্দ্র করে বিসিবি-পিসিবি নিয়মিত বিরতিতে দিচ্ছে নিজেদের বক্তব্য। তবে পাকিস্তানি ব্যাটসম্যান শেহজাদ বলছেন বাংলাদেশের পাকিস্তান সফরে যাওয়ার মত নিরাপদ অবস্থায় আছে দেশটি।

২৮ বছর বয়সী এই ব্যাটসম্যান আজ গণমাধ্যমকে বলেন, ‘কিন্তু আমি বলবো পাকিস্তান একটি নিরাপদ দেশ। আবারও বলছি পাকিস্তান নিরাপদ, নিরাপদ। ইতোমধ্যে পাকিস্তানের ঘরের মাঠে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরেছেও। খেলোয়াড়, কোচিং স্টাফদেরর প্রেসিডেন্ট পর্যায়ের ও বেশ কড়া নিরাপত্তা প্রদান করা হচ্ছে। আর দেশটির আতিথেয়তার কথাতো আপনাদের সবারই জানা।’

শ্রীলঙ্কাকে উদাহরণ হিসেবে টেনে শেহজাদ যোগ করেন, ‘শ্রীলঙ্কা সম্প্রতি ঘুরে এসেছে, সফরটি বেশ সফলতার সাথে শেষ হয়েছে আমরা সবাই দেখেছি। ক্রিকেট বোর্ড নিজেদের সর্বোচ্চটা দিচ্ছে, আর সেখানকার মানুষজনের কথা আলাদা করে বলতেই হয় তারা বেশ পরিশ্রম করেছে দলগুলোকে বোঝাতে এবং সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে। বাংলাদেশের ক্ষেত্রেও এটাই হবে, আমি মনে করি তাদের যাওয়া উচিত। আমাকে ব্যক্তিগতভাবে জিজ্ঞেস করলে আমি বলবো আমি বেশ উপভোগ করবে, ওখানকার আতিথেয়তা এবং খাবার অবশ্যই পছন্দ হবে। আমার কাছে উপযুক্ত জায়গা মনে হচ্ছে ক্রিকেট খেলার জন্য।’

নাজমুল হাসান তারেক

Read Previous

না ফেরার দেশে আব্দুল আতিক খান

Read Next

বিশ্বকাপে যাবার আগে যা বললেন টাইগার যুবাদের কোচ ও অধিনায়ক

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
35
Share