শেন ওয়ার্নের কথার জবাব দিলেন উসমান খাজা

উসমান খাজা

‘অস্ট্রেলিয়ার হয়ে খেলাটা কতটা গুরুত্বপূর্ণ তা তাকে (উসমান খাজা) দেখানো দরকার।’ অজি কিংবদন্তি লেগ স্পিনার শেন ওয়ার্নের এমন মন্তব্যের পর দুজনের কথার লড়াই চলছেই। শেন ওয়ার্নের মন্তব্যের প্রতিত্তোরে খাজা বলছেন, ‘আমি আমার জায়গায় যথাযথই, সে (শেন ওয়ার্ন) সেটা দেখুক কিংবা না দেখুক।’

পাকিস্তানের বিপক্ষে সদ্য সমাপ্ত গ্যাবা টেস্ট দিয়ে শুরু টেস সিরিজ। স্কোয়াডে ছিলেননা উসমান খাজা। তাকে বাদ দেওয়ায় প্রধান কোচ ও নির্বাচকের প্রশংসাও করেন ওয়ার্ন। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘জাস্টিন ল্যাঙ্গার ও ট্রেভর হনস উসমান খাজার সাথে ভালো কাজই করেছে। তাকে বাদ দেওয়ার পাশাপাশি জিজ্ঞেস করা দরকার ছিল টেস্ট ক্রিকেট ও অস্ট্রেলিয়ার হয়ে খেলা কতটা গুরুত্বপূর্ণ তার কাছে।’

‘তার পুরো টেস্ট ক্যারিয়ার জুড়েই দেখা যাবে সে কেবল যথেষ্টের মধ্যেই সীমাবদ্ধ ছিল। মাঝেমধ্যে তাকে বাড়তি ঝাঁকুনি দিতে হয়। আলাদা আলাদা ব্যক্তিত্বের সমন্বয়ে একটি দল গঠিত হয়। তাদের মধ্যে কিছু লোক অন্যদের মত উৎসাহী ও সংবেদনশীল হয়না। বিশেষ করে তার (উসমান খাজা) শরীরি ভাষা আরও উন্নত হওয়া উচিত।’

অস্ট্রেলিয়ার ঘরোয়া সীমিত ওভারের খেলায় কুইন্সল্যান্ডকে নেতৃত্ব দেওয়া খাজাও দিয়েছেন জবাব, ‘আমি মনে করি ঐ প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার কোন প্রয়োজন আছে। আমি একজন ব্যাটসম্যান, প্রথমত একজন রান স্কোরার, আর এটিই আমার হাতিয়ার।’

‘আপনি যদি আমার শিল্ড রেকর্ড দেখেন, ঘরোয়া একদিনে রেকর্ড, অস্ট্রেলিয়ার হয়ে রেকর্ড ও বিগব্যাশে আমার রেকর্ড দেখেন আমি কিন্তু রান করেছি। এটাই মূল ব্যাপার, শরীরি ভাষাই সব নয়। আমি যথার্থই আছি, আপনি সেটা খুঁজে পান বা না পান। এটাই মূল বিষয়।’

অ্যাশেজে খারাপ করার ফলই পেয়েছে খাজা, কিন্তু ৪৪ টেস্টে ৪০.৬৬ গড় কিন্তু খাজার পক্ষেই কথা বলবে। বিশেষ করে ঘরের মাঠে যা আবার আরও বেশ ভালো, ৫২.৯৭! টেস্টের স্কোয়াড থেকে তাকে বাদ দিলেও প্রধান কোচ আশ্বস্ত করেছেন ব্যাটে রান পেলেই আবারও ডাক পাবেন, আছেন বিবেচনাতেই।

টেস্ট স্কোয়াড ঘোষণার পর এখনো পর্যন্ত  কুইন্সল্যান্ডের হয়ে এক ইনিংস ব্যাট করার সুযোগ পেয়ে ৮৬ রানে ছিলেন অপরাজিত। শেফিল্ড শিল্ডে তার বিপক্ষে আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত গিয়েছিল বলেও অভিযোগ করেন অজি এই ব্যাটসম্যান। যদিও এরপরও ৫ ম্যাচেই দুই সেঞ্চুরির পাশাপাশি তুলে নেন এক ফিফটি।

বাজে আম্পায়ারিং নিয়ে খাজা যোগ করেন, ‘এটা হতাশাজনক তবে এটাই জীবন। আমাকে সামনে এগিয়ে যেতে হবে এর বাইরে আসলে কিছু করার নেই এটা নিয়ে। কুইন্সল্যান্ডের হয়ে খেলতে পেরে আমি বেশ খুশি, আমার রাজ্যের জন্য ব্যাট হাতে অবদান রাখতে পেরেও আনন্দিত। আসলে আগের কিছু নিয়ে ভাবতে চাইনা, ব্যাটসম্যান হিসেবে রান করা, ফিল্ডার হিসেবে ক্যাচ ধরা কিংবা রান আউট করাতেই আমার যত মনযোগ।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা পাকিস্তান যেতে চান, তবে…

Read Next

ইডেন টেস্টের টিকিটের অর্থ ফেরত পাচ্ছে দর্শকরা

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
3
Share