আরেক দফায় বিস্মিত বিসিবি সভাপতি

নাজমুল হাসান পাপন

ভারতের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ হারের পরই বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের মন খারাপ হয়েছিল ভীষণ। বিপিএলের লোগো উন্মোচন অনুষ্ঠানে এসেতো সাংবাদিকদের অকপটেই বলে দিলেন টেস্ট শুরুর আগে টি-টোয়েন্টি সিরিজ হেরেই মন ভেঙে দিয়েছে মুশফিক-রিয়াদরা, এমনকি হারের শোক কাটাতে বাসা থেকেও বের হননি।

দিন কয়েকের ব্যবধানে মুমিনুল হকরা আবারও আশাহত করেছেন বিসিবি বসকে। তবে এবার তাঁকে জানানো তথ্যের সাথে কাজের মিল না পেয়ে হতাশ হয়েছেন বিসিবি বস। ইনদোর টেস্টে ইনিংসে হারের পর বেশ বর্ণিল আয়োজনের গোলাপি বলে অভিষেকটাও হয়েছে তেতো। টস জিতে ব্যাটিং নিয়ে ইশান্ত শর্মা, মোহাম্মদ শামি, উমেশ যাদবদের পেস, বাউন্স, সুইংয়ে টালমাটাল বাংলাদেশ সাকুল্যে করতে পারে ১০৬ রান।

জবাবে ২৪১ রানের লিড নিয়ে ইনিংস ঘোষণা ভারেতের, নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে ১৩ রানেই সাজঘরে চার টাইগার ব্যাটসম্যান। এবার যেন প্রথম ইনিংসের লজ্জাকেও ছাপিয়ে যাওয়ার উপক্রম। শেষ পর্যন্ত মুশফিকুর রহিমের ফিফটিতে দ্বিতীয় দিনই ম্যাচ শেষ হওয়া থেকে রক্ষা পায় বাংলাদেশ। ৬ উইকেটে ১৫২ রানে শেষ করে দিন।

প্রথম টেস্টে টস জিতে ফিল্ডিং না নেওয়ায় বেশ সমালোচনার মুখোমুখি হতে হয়েছে টাইগার দলপতি মুমিনুলকে। ইডেন টেস্টেও আবার টস জিতে ব্যাটিং নিতে দেরি করেনি মুমিনুল, এবারও তোপের মুখে টাইগারদের নয়া টেস্ট কাপ্তান। ইনদোরের পেস বান্ধব উইকেটে টস জিতে ব্যাটিং তার ক্রিকেটীয় জ্ঞানকেই করেছে প্রশ্নবিদ্ধ, এদিকে ইডেনের ক্ষেত্রে কারণটা আবার ভিন্ন।

মূলত গোলাপি বল আর দিবারাত্রির টেস্টে অনভিজ্ঞ বলে আগে বল করে প্রতিপক্ষ শিবিরের ব্যাটিং ইনিংস দিয়ে পরিস্থিতি বোঝার চেষ্টা করা হত বুদ্ধিমানের কাজ। কিন্তু এবারও টস জিতে মুমিনুল নিয়ে নিলেন ব্যাটিং, ফলাফল চরম ব্যর্থ পুরো ব্যাটিং লাইনআপ। টস জিতে ব্যাটিং নেওয়া বিস্মিত করেছে বিসিবি সভাপতিকে, কারণ ম্যাচের আগের দিনও তিনি নিশ্চিত ছিলেন টস জিতলে টাইগার কাপ্তান প্রতিপক্ষকেই আগে ব্যাটিংয়ে পাঠাবেন।

ইডেন টেস্টের দ্বিতীয় দিন শেষে হোটেলে ফেরার আগে কোলকাতায় সাংবাদিকদের নাজমুল হাসান পাপন বলেন, ‘ব্যাটিং নেওয়ায় সত্যিই আশ্চর্য হয়েছি। আগের দিনও টিম ম্যানেজমেন্টের সঙ্গে কথা হয়েছে। কোচ-অধিনায়ক দুজনই বলেছে ফিল্ডিং নেবে। এটা নিশ্চিত ছিল। টস জিতে যখন দেখেছি ব্যাটিং নিয়েছি, তখনই ধাক্কা খেয়েছি।’

‘অতি আত্মবিশ্বাসের কারণে কিনা জানি না। ভারতীয়দের যার সঙ্গেই কথা বলেছি, বলেছে তারা প্রথমে ফিল্ডিং নিত। ওরা ব্যাটিং কখনোই নিত না। সতেজ উইকেট। গোলাপি বল কেমন আচরণ করে সেটা না বুঝে ভারত আগে ব্যাটিং নিত না।’

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

প্লে-অফেই থামতে হল বাংলা টাইগার্সকে

Read Next

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষ্যে আয়োজনে থাকবেন সৌরভ

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
6
Share