বাংলাদেশি স্পিনারদের দেখে রোমাঞ্চিত ভেট্টোরি

মেহেদী হাসান মিরাজ ড্যানিয়েল ভেট্টোরি

একদিন পরই শুরু হতে যাচ্ছে ঐতিহাসিক দিবারাত্রির ইডেন টেস্ট। ভারতের মাটিতে এমনিতেই বাইরের স্পিনারদের খুব একটা করণীয় থাকেনা, তার উপর সাম্প্রতিক সময়ে ভারতের পেস বান্ধব উইকেট বাংলাদেশি স্পিনারদের জন্য যেন হাঁসফাঁস করার মঞ্চ। ইনদোরের মত ইডেনেও রাজত্ব করবে পেসাররা অনুমেয়ই, বাড়তি আতঙ্ক যোগ করেছে ফ্লাডলাইট আর গোলাপি বল। বাস্তবতা মেনেই মিরাজ-তাইজুলদের গুরু ভেট্টোরি বলছেন স্পিনাররাও রাখতে পারেন ভূমিকা, বাতলে দিয়েছেন উপায়ও।

নিজে বোলার হিসেবে বহুবার ভারত সফরে এসেছেন, খেলোয়াড়ি জীবনের ইতি টেনে এখন নিউজিল্যান্ড কিংবদন্তি ভারত আসেন কোচ হিসেবে। আইপিএলে কোচিং করানো ড্যানিয়েল ভেট্টোরি বর্তমানে বাংলাদেশের স্পিন কোচ, সফরকারী স্পিনারদের জন্য ভারত কতটা কঠিন তা জানাতে গিয়ে ভেট্টোরি বলেন, ‘আমার জন্য ছিল দুঃস্বপ্ন। সফরকারী স্পিনারদের ওপর ভারত সবসময়ই দাপট দেখিয়েছে। গত তিন-চার বছরেও, প্রতিপক্ষ স্পিনারদের তারা প্রচণ্ড চাপে ফেলেছে।

এখানকার উইকেটের ধরণ, স্পিনারদের কাছে তার দলের প্রবল প্রত্যাশা ও ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের স্কিল, সব মিলিয়েই বাইরের স্পিনারদের জন্য কাজটা কঠিন। আগের টেস্টে আমরা দেখেছি, মায়াঙ্ক ও রাহানে কিভাবে আমাদের স্পিনারদের চাপে রেখেছে। ইন্দোরে ভালো উইকেটে স্পিনারদের করার খুব বেশি কিছু ছিল না। এখানেও অনেকটা একইরকম হবে।

ইডেনের পিচ গোলাপি বলে পেসারদের দুহাত ভরে দেওয়ার অপেক্ষায়, তবে বাংলাদেশ স্পিন কোচ বলছেন ভিন্ন পন্থায় স্পিনারদেরও থাকছে ভূমিকা রাখার সুযোগ, ‘গোলাপি বলের টেস্টেও স্পিনাররা বড় ভূমিকা রাখতে পারে। তবে সেই ভূমিকা এখানে ভিন্ন হবে। সূর্যাস্ত এখানে দ্রুত হয়ে যায়। বাড়তি একজন পেসারের সঙ্গে স্পিনারদের মূল কাজ হবে এখানে রান আটকে রাখা।

বাংলাদেশি স্পিনারদের সাথে কাজ করতে মাত্র ১০০ দিনের চুক্তিতে যোগ দিয়েছেন সাবেক নিউজিল্যান্ড স্পিনার। ভারত সফর সামনে রেখে গত ২৫ নভেম্বর কাজ শুরু করেন তাইজুল, বিপ্লব, মিরাজদের নিয়ে। ২০২০ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ পর্যন্ত ধাপে ধাপে ১০০ দিন ঘষামাঝা করবেন টাইগার স্পিনারদের নিয়ে। দিন কয়েকের দেখভালেই বাংলাদেশি স্পিনারদের মধ্যে দেখেছেন বেশ ভালো সম্ভাবনা।

বাংলাদেশি স্পিনারদের মধ্যে দেখা সম্ভাবনা প্রসঙ্গে ভেট্টোরি জানান, ‘আমি খুবই রোমাঞ্চিত। তাইজুল ও মিরাজকে আগে থেকেই জানতাম। নাইম বিশেষ এক প্রতিভা। টি-টোয়েন্টি সিরিজে লেগ স্পিনার বিপ্লবকে দেখেও মুগ্ধ হয়েছি। ঢাকায়ও আমি বেশ কিছু স্পিনারকে দেখে এসেছি। আমার জন্য এটি দারুণ সুযোগ। আমি জানি, ওদেরকে নিয়ে অনেক কাজ করতে হবে। তবে বেশ দারুণ কিছু বোলার আছে, যারা সময়ের সঙ্গে আরও সমৃদ্ধ হতে পারে।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

রাসেল-সামিদের হারিয়ে জয়ের ধারা অব্যাহত রাখলো বাংলা টাইগার্স

Read Next

আরেক দফায় চোটে পড়লেন মাশরাফি

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
9
Share