জাতীয় লিগ খেলবে সব ক্রিকেটারই

রাজশাহী এনসিএল

জাতীয় দলের সিনিয়র ক্রিকেটাররা জাতীয় লিগ, বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের মত চারদিনের ফরম্যাটে খেলেননা এটা যেন অঘোষিত নিয়ম হয়ে দাঁড়িয়েছিল। তবে জাতীয় ক্রিকেট লিগে (এনসিএল) সব খেলোয়াড়কে নিশ্চিত করতে আসন্ন আসর বিসিবি করেছে বাধ্যকতা। ফলে জাতীয় দলের ক্যাম্প ও সিরিজ না থাকলে খেলতেই হবে জাতীয় লিগে, কিন্তু ক্রিকেটাররা কি মন থেকেই জাতীয় লিগ খেলতে আগ্রহী? মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ বলছেন নিজেদের মধ্যে ইতোমধ্যে শুরু হয়ে গেছে আলোচনা, খেলবে সব ক্রিকেটারই।

রাজশাহী এনসিএল
ফাইল ছবি

ছুটি কাটিয়ে অনুশীলনে ফিরেছেন তামিম ইকবাল। আগামী মাসের প্রথম সপ্তাহেই মাঠে গড়াচ্ছে জাতীয় লিগ, হারানো ফর্ম ফিরে পেতে জাতীয় লিগে খেলার অপেক্ষায় জানিয়েছেন নিজে। নভেম্বর ভারত সফর, এর আগেই শুরু হবে জাতীয় দলের ক্যাম্প। কিন্তু ক্যাম্পের আগেই জাতীয় লিগ দিয়ে নিজেদের ঝালিয়ে নেওয়ার ভালো সুযোগ থাকছে ক্রিকেটারদের।

কিন্তু টানা ক্রিকেটের মধ্যে থাকা জাতীয় দলের খেলোয়াড়রা জাতীয় লিগ কতটা স্বতঃস্ফূর্তভাবে উপভোগ করবেন এ নিয়ে থাকছে সংশয়। বৃষ্টিতে শিরোপা ভাগাভাগি হওয়া ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনাল পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ জানিয়ে গেছেন এনসিএল সহ যেকোন ধরনের ক্রিকেটই তারা গুরুত্বের সাথেই খেলেন।

দলের অন্যান্য ক্রিকেটাররাও খেলবেন বলে আশাবাদী রিয়াদ আরও যোগ করেন,’সবাই কম বেশি সিরিয়াস কারণ আমরা যখন ক্রিকেট খেলতে যাই সেটা এনসিএল হোক বিসিএল হোক যেখানেই খেলি যে ফরম্যাটেই খেলি পারফর্ম করতে হবে। কারণ পারফর্ম না করলে হয়তবা প্রশ্ন উঠবে। তো যে যার জায়গা থেকে পারফর্ম করার চেষ্টা করে এমনকি যখন আজ (২৪ সেপ্টেম্বর) বৃষ্টি হচ্ছিল তখনও আমরা এনসিএল নিয়ে কথা বলছিলাম। কে কোন টিমে খেলবে কার ম্যাচ কোথায় এ জিনিসগুলো নিয়ে কথা হচ্ছিল আমার মনে হয় সবাই নিজ থেকেই খেলবে এবং পারফর্ম করার চেষ্টা করবে।’

এদিকে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালের টিকিট পেতে বেশ ভোগান্তি পোহাতে হয়েছে দর্শকদের। যারা বহু কষ্টে সোনার হরিণ টিকিট পেয়ে বৃষ্টি উপেক্ষা করে গ্যালারিতে অপেক্ষা করেছিলেন প্রিয় দলের খেলা দেখবেন বলে তাদের টিকিটের টাকা ফেরত দেওয়া যেত কিনা? এমন প্রশ্নে রিয়াদের উত্তর, ‘সম্ভবত এটা একটা ভিন্ন প্রশ্ন, এটার যথার্থ উত্তরও আমি হয়ত দিতে পারবনা। আমরা যখন ড্রেসিংরুমে বসে আছি, বৃষ্টি পড়ছিল। ছোট ছোট বাচ্চারা বৃষ্টিতে ভিজতেছিল, তখন একটু আফসোস লাগছিল। ম্যাচটা হলেই ভালো ছিল, তাহলে ওরা হয়তো ভিজতনা। বাচ্চাদের জন্য অনেক খারাপ লাগছিল তারা অনেক আশা করে আসছিল, সবাই আশা করে আসছে । আর এজন্যই ম্যাচটা না হওয়ায় খারাপ লাগছিল।’

নাজমুল হাসান তারেক

Read Previous

‘আফগানিস্তানের কাছ থেকে শেখার কিছু নেই’

Read Next

অধিনায়কত্বের দায়িত্ব নিতে প্রস্তুত রিয়াদ

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Total
0
Share