মাঠেই হাতাহাতিতে জড়ালেন দুই দলের ক্রিকেটার

1538548768094
Vinkmag ad

ক্রিকেট মাঠে একে অন্যের সাথে কথার লড়াই বা একে অন্যের দিকে রুখে যাওয়ার মত ঘটনা নেহাত কম দেখা যায় না। তবে এবার ইংল্যান্ডের নর্থ ওয়েলস ক্রিকেট লিগে যা হলো তা রীতিমত বিস্ময়কর বললেও কম হয়ে যাবে। লিগে সেন্ট অ্যাসফ ও নর্থপের মধ্যে ম্যাচ চলাকালে দুই দলের খেলোয়াড়ের মধ্যে জোর মারপিট হয়ে গেলো। এই ঘটনাতে পরে অবশ্য বাধ্য হয়েই বেশ কিছু সময় খেলা বন্ধ রাখতে হয়।

ক্রিকেট ভদ্রলোকের খেলা বলেই পরিচিত। তবে এবার এই কথাটি ভাঙলো খোদ ক্রিকেটের জন্মভূমি ইংল্যান্ডেই। সেন্ট অ্যাসফ এবং নর্থপের ম্যাচে আম্পায়ারের ভুল সিদ্ধান্ত নিয়েই ঝামেলার সূত্রপাত। ৩৬ রানের মাথায় আউট হন ম্যাট রায়ান। তবে আম্পায়ার আউট দেওয়ার পরেও মাঠ ছাড়তে চাননি তিনি৷ রায়ানের দাবি ছিল, ক্যাচ আউট হওয়া বলটি তার ব্যাটে লাগেনি। এই নিয়ে এক ফিল্ডারের সঙ্গে কথা কাটাকাটি হয় তার ৷ যা ক্রমেই তা বাকযুদ্ধ থেকে হাতাহাতির আকার ধারণ করে। ওই ফিল্ডারের সঙ্গে রায়ানের মারপিট শুরু হয়ে যায়।

1538542506
খেলা চলাকালীন সময়েই ক্রিকেটাররা জড়িয়ে পড়েন হাতাহাতিতে

সেই ক্রিকেটারও পাল্টা মারতে ছাড়েননি। মারপিটের সময় রায়ান মাটিতে পড়ে যান। এজন্য তাঁর মাথায় সামান্য আঘাত লাগে। ঝামেলা বাড়ছে দেখে অন্যান্য খেলোয়াড়রা এগিয়ে এসে দুজনকে নিরস্ত করেন। এমন ঘটনা ক্রিকেট মাঠে খুবই আশ্চর্যজনক। মাঠে উপস্থিত দর্শকরাও এমন দৃশ্য দেখে হকচকিয়ে যান। শেষ পর্যন্ত রায়ানদের থামাতে এগিয়ে আসেন দলের বাকি ক্রিকেটাররাই।

মাঠে উপস্থিত দর্শকরা জানিয়েছেন, ক্রিকেট মাঠে এ ধরনের ঘটনা খুবই আশ্চর্যজনক। মাঠে এমন ঘটনার সাক্ষী হওয়া নিতান্তই বিরল। ঘটনার পর নর্থপ দলের ম্যানেজার ডেল হার্ল এবং সেন্ট অ্যাসফের অধিনায়ক উইলিয়াম রায়ান কোনও মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি জানান।

ঘটনার বিষয়টি পরে লিগ কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। লিগের নিয়ন্ত্রকরা জানিয়েছেন, ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে এর মধ্যেই। প্যানেল আম্পায়ারদের কাছ থেকে তদন্ত কমিটির নির্বাচিত সদস্যরা রিপোর্ট পেয়েছেন। ম্যাচ রেফারি ও মাঠে উপস্থিত খেলোয়াড়দের এই ব্যাপারে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

জহুরুল ১৬৩*, আফিফের ‘৭’ উইকেট

Read Next

রনির ডাবল, মজিদের সেঞ্চুরিতে ঢাকার দাপট

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
0
Share