কোটি টাকার ধাক্কা সাকিব-মাশরাফিদের!

featurhoto1

বাংলাদেশ ক্রিকেটের অগ্রযাত্রার সাথে সাথে বদলে গেছে দেশের ক্রিকেটারদের তারকাখ্যাতির তকমাও। দলীয় সাফল্যের ফলে বাংলাদেশ ক্রিকেটের কাঠামো বদলের মূল নায়ক কিন্তু ক্রিকেটাররাই, আর তাই গত কয়েকবছর ধরেই সাকিব-তামিম-মাশরাফিদের বিজ্ঞাপন চাহিদাও বেড়েছে অনেকগুণ বেশি।

বিভিন্ন পণ্যের বিজ্ঞাপনের চুক্তিতে আবদ্ধ হয়ে ক্রিকেটাররাও আয় করছিল কোটি টাকার উপরে। কিন্তু বাংলাদেশ ক্রিকেটের বর্তমান স্পন্সর টেলিকম কোম্পানির এক শর্তই ক্রিকেটারদের বঞ্চিত করতে যাচ্ছে এই বিশাল আয়ের উৎস থেকে।

shakib 20180130120026

২০১৭ সালে প্রায় ৬০ কোটি টাকার বিনিময়ে স্পন্সরশীপ কিনে নেয় টেলিকম কোম্পানি রবি, তাদের শর্তে বলা ছিলো রবি ছাড়া অন্যকোন মোবাইল অপারেটরের বিজ্ঞাপনে অংশ নিতে পারবেনা কোন চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটার। কিন্তু এরই মধ্যে বাংলালিংকের সাথে ৫ কোটি টাকায় ৪ বছরের চুক্তিতে আবদ্ধ হন সাকিব আল হাসান, মাশরাফি-তামিমরাও কোটি টাকায় চুক্তিবদ্ধ হন অন্যান্য টেলিকমের সাথে।

এতদিন এটা নিয়ে চুপ থাকলেও হঠাৎই সক্রিয় হয়ে উঠে রবি। আর এতেই বিজ্ঞাপনে অংশ নেওয়া ক্রিকেটারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে যাচ্ছে বিসিবি, রবি ছাড়া অন্যান্য অপারেটরের সাথে করা সব চুক্তিই বাতিলের নোটিশ পাঠানো হয়েছে সংশ্লিষ্ট ক্রিকেটারদের।

এ ব্যাপারে বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজামুদ্দিন চৌধুরী সুজন জানান, ‘আন্তর্জাতিক যে কোন টুর্নামেন্ট বা চুক্তিতেই সাধারণত একই ধরনের দুটি প্রতিষ্ঠানকে রাখা হয় না। আইসিসি মেনে চলে এই রীতি। এ নিয়মের কারণে ক্রিকেটাররা আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হলেও দু’পক্ষের আলোচনাতেই টিম স্পন্সরের শর্ত মেনে চলতে আগ্রহী বিসিবি। তাই তো বিসিবিও টিম স্পন্সরের শর্ত মেনে বিষয়টি জানিয়েছে ক্রিকেটারদের।’

এমন সিদ্ধান্তে দারুণ ক্ষতিগ্রস্ত হতে যাচ্ছেন ক্রিকেটাররা কারণ বছরে বিসিবি থেকে পাওয়া বেতনের দিগুণেরও বেশি আয় ছিল এই বিজ্ঞাপন থেকেই।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

পাকিস্তানকে উড়িয়ে দিয়ে ফাইনালে ভারতীয় যুবারা

Read Next

ডিপিএলের সুপার লিগ দেখানো হবে টিভিতে!

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
0
Share