জাতীয় লিগের শীর্ষ দশ উইকেট শিকারি

ncl feature
Vinkmag ad

শেষ হয়েছে এবারের জাতীয় লিগ, যেখানে চ্যাম্পিয়ন হয়ে হ্যাট্রিক শিরোপার স্বাদ নিয়েছে খুলনা বিভাগ। এবারের লিগের ব্যাটসম্যানদের দাপট খুব ভালোভাবেই নজরে এসেছে। বোলারও ম্যাচের গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্তে ম্যাচের গতি পাল্টে দিয়েছেন। এক নজরে দেখে নেওয়া যাক এবারের আসরের সেরা দশ উইকেট শিকারি বোলারের নাম

nnnn

১) ফরহাদ রেজা (রাজশাহী বিভাগ): রাজশাহী বিভাগের পরীক্ষিত সৈনিক। অনেক বছর ধরে আছেন দলের সাথে, স্বাক্ষী হয়ে আছে দলের অনেক সফলতার ও ব্যর্থতার। জাতীয় দলের এই সাবেক অলরাউন্ডার এখনো সেবা দিয়ে চলেছেন নিজ বিভাগীয় দল রাজশাহীকে। মূলত তার পারফরমেন্সের কারণেই রাজশাহী এবারের লিগে রানার্স আপ হয়েছে। ছয় ম্যাচে ২১ উইকেট নিয়ে এবারের লিগের সেরা উইকেট শিকারি তিনি। ছয় ম্যাচের দশ ইনিংসে ২০.৩৩ গড়ে নিয়েছেন ২১ উইকেট। ৮৬ রানে ৪ উইকেট তার সেরা বোলিং। ম্যাচ সেরা ৬১ রানে ৬ উইকেট।

২) নাহিদুজ্জামান(ঢাকা মেট্রো): দল ভালো না করলেও নাহিদুজ্জামান বোলিংয়ে কারিশমা দেখিয়েছেন। পাঁচ ম্যাচে আট ইনিংসে ২৮.৯০ গড়ে নিয়েছেন ২১ উইকেট। ইনিংস সেরা ৪৫ রানে ৫ উইকেট। ম্যাচে পেয়েছেন ১৯৭ রানে ৭ উইকেট।

৩) আব্দুর রাজ্জাক(খুলনা বিভাগ): বাংলাদেশ দলের এই অন্যতম সেরা এই স্পিনার অনেক দিন ধরে আছেন জাতীয় দলের বাইরে। কিন্তু তার পারফরমেন্স থেমে নেই। যেখানেই সুযোগ পান নিজের শ্রেষ্ঠত্ব প্রমাণ করেন। তার নেতৃত্বে খুলনা দল এবারে হ্যাট্রিক শিরোপা ঘরে তুলেছে। এবারের লিগে উইকেট সংগ্রহে তার অবস্থান তিনে। ৬ ম্যাচে ৯ ইনিংসে ৪৩.৪০ গড়ে নিয়েছেন ২০ উইকেট। ৩২ রানে ৫ উইকেট তার ইনিংস সেরা। ম্যাচ সেরা ১২২ রানে ৯ উইকেট।

৪) ইফতেখার সাজ্জাদ(চট্টগ্রাম বিভাগ): এবারের জাতীয় লিগে সবার নিচে অবস্থান চট্টগ্রাম বিভাগের। কিন্তু চট্টগ্রামের ইফতেখার সাজ্জাদ উইকেট শিকারির তালিকায় উঠে এসেছেন চার নাম্বার অবস্থানে। ৫ ম্যাচের ৮ ইনিংসে ২৮.৬১ গড়ে উইকেট নিয়েছেন ১৮টি। ইনিংস সেরা ৪৩ রানে ৫ উইকেট। ম্যাচ সেরা ১৫৫ রানে ৮ উইকেট।

৫) মেহেদী হাসান রানা(চট্টগ্রাম বিভাগ): চট্টগ্রামের তরুণ পেসার তার গতি দিয়ে এবারের লিগে ভড়কে দিয়েছেন অনেক ব্যাটসম্যানকে। ৫ ম্যাচে ৮ ইনিংসে ২৭.২৩ গড়ে নিয়েছেন ১৭ উইকেট। ইনিংস সেরা ৩০ রানে ৩ উইকেট। ম্যাচ সেরা ৯৮ রানে ৬ উইকেট।

৬) মনির হোসেন(বরিশাল বিভাগ): অনেক দিন ধরে মনির হোসেন ঘরোয়া লিগে বল হাতে দারুণ পারফরমেন্স করে যাচ্ছেন। এবারের জাতীয় লিগেও তার স্বাক্ষর রেখেছেন। ৬ ম্যাচে ৭ ইনিংসে ৩১.৮৮ গড়ে দখল করেছেন ১৭ উইকেট। ইনিংসে সেরা বোলিং ৮৫ রানে ৭ উইকেট। ম্যাচ সেরা ১৫৫ রানে ৯ উইকেট।

৭) এনামুল হক জুনিয়র(সিলেট বিভাগ): বাংলাদেশের প্রথম টেস্ট জয়ের নায়ক তিনি, ঘরোয়া লিগের নিয়মিত পারফরমার।  সুযোগ পেলেই নিজের সামর্থ্যের প্রমাণ রাখেন। এবারের জাতীয় লিগে উইকেট শিকারির তালিকায় আছেন ৭ম অবস্থানে। ৩ ম্যাচে ৫ ইনিংসে ২৩.০০ গড়ে নিয়েছেন ১৬ উইকেট। ইনিংস সেরা বোলিং ৬৩ রানে ৫ উইকেট। ম্যাচে সেরা বোলিং ১৫৯ রানে ১০ উইকেট।

৮) দেলোয়ার হোসেন(রাজশাহী বিভাগ): রাজশাহীর এই বোলার এবারের লিগে উইকেট শিকারে আছেন ৮ম অবস্থানে। ৩ ম্যাচে ৬ ইনিংসে ১৭.৩৩ গড়ে নিয়েছেন ১৫ উইকেট। ইনিংস সেরা ২৩ রানে ৬ উইকেট। ম্যাচে নিয়েছেন ৯২ রানে ৯ উইকেট।

৯) শুভাগত হোম(ঢাকা বিভাগ): কিছুদিন আগেও জাতীয় দলের হয়ে খেলেছেন। ব্যাট বল সমান তালে চালাতে পারেন। এবারের লিগে তার প্রমাণ রেখেছেন। উইকেট শিকারে আছেন ৯ম অবস্থানে। ৬ ম্যাচের ৬ ইনিংসে ২৬.০৬ গড়ে নিয়েছেন ১৫ উইকেট। ইনিংস সেরা ৬২ রানে ৪ উইকেট। ম্যাচ সেরা বোলিং ১০৭ রানে ৫ উইকেট।

১০) শরীফুল্লাহ(ঢাকা মেট্রো): ঢাকার এই তরুণ তুর্কি বল হাতে ঝড তুলেছেন একাধিকবার। এবারের লিগে উইকেট দখলে আছেন ১০ম অবস্থানে। ৪ ম্যাচে ৭ ইনিংসে ২৩.৬৪ গড়ে নিয়েছেন ১৪ উইকেট। ইনিংস সেরা ৫৭ রানে ৩ উইকেট। ম্যাচে সেরা বোলিং ১০৩ রানে ৪ উইকেট।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

চিন্তার কারণ লঙ্কান শিবিরে হাথুরুসিংহের উপস্থিতি!

Read Next

যুবাদের চাপমুক্ত হয়ে খেলার পরামর্শ মাশরাফির

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
0
Share