ঐতিহাসিক অ্যাশেজ অস্ট্রেলিয়ার

received 1894159280613521
Vinkmag ad

ব্রিসবেন ও অ্যাডিলেডের পর পার্থ। ভেন্যুর পরিবর্তন হলেও ইংল্যান্ডের ভাগ্যের পরিবর্তন হচ্ছে না। পাঁচ ম্যাচ অ্যাশেজ সিরিজের প্রথম তিন টেস্ট জিতেই অ্যাশেজ পুনরুদ্ধার করল অস্ট্রেলিয়া। পার্থ টেস্টে ইনিংস ও ৪১ রানে জিতেছে স্টিভ স্মিথের দল।

received 1894160267280089
পার্থে সিরিজের তৃতীয় টেস্টের পঞ্চম দিন ২১৮ রানেই শেষ হয়ে গেল ইংল্যান্ডের দ্বিতীয় ইনিংস। ফলে অস্ট্রেলিয়ার জয় ইনিংস ও ৪১ রানে। ২০১৫ সালে শেষবার অ্যাশেজ জিতেছিল ইংল্যান্ড। এখনও দুটি টেস্ট বাকি। অস্ট্রেলিয়াকে থামানোর কোনও অস্ত্রই বের করতে পারেনি ইংল্যান্ড। ৩৩ বার অ্যাশেজ জিতল অস্ট্রেলিয়া। ৩২ বার পেয়েছে ইংল্যান্ড।

পার্থ টেস্টের শেষ দিনের সকালটা ইংল্যান্ডকে ম্যাচ বাঁচানোর আশাই দেখিয়েছিল। আগের দিনে শেষ প্রায় ঘণ্টা ভাসিয়ে নিয়েছিল বৃষ্টি। বৃষ্টি ছিল আজ সকালেও। খেলার উপযুক্ত করতে লেগে যায় তিন ঘণ্টা, খেলা শুরু হয় লাঞ্চের পর।

চতুর্থ দিনের শেষে ইংল্যান্ডের রান ছিল ৪ উইকেটে ১৩২ রান। দিনের শুরুতে প্রতিরোধের চেষ্টা করেন ইংল্যান্ড ব্যাটসম্যান মালান। ২৮ রানে অপরাজিত থাকা ব্যাটসম্যান ১১৩ বল খেলে অর্ধশতকে পৌঁছান। তবে অপরপ্রান্তে থাকা জনি বেয়ারস্টো উইকেটে থাকতে পারেনি বেশিক্ষণ। দিনের দ্বিতীয় আর নিজের প্রথম ওভারের প্রথম বলেই জশ হ্যাজেলউডের বলে উপড়ে যায় বেয়ারস্টোর অফ স্টাম্প। বেয়ারস্টো প্যাভিলিয়নে ফিরে যান ১৪ রানে।

এরপর মঈন আলী ও মালানের ৩৯ রানের ছোট্ট জুটি। বোলিংয়ে এসেই ১১ রান করা মঈনকে ফিরিয়ে দিলেন লায়ন। ৫৪ রান করা মালানকে আউট করেছেন হ্যাজেলউড, এরপর ক্রেইগ ওভারটনকে ফিরিয়ে দিয়ে ইনিংসে ৫ উইকেট নিয়েছেন তিনি।

মালান ফিরতেই ধীরে ধীরে ইংলিশদের আশা শেষ হতে শুরু করে। এরপর স্টুয়ার্ট ব্রড ও ক্রিস ওকসকে ফিরিয়ে ইংল্যান্ডের ইনিংস গুটিয়ে দিয়েছেন অজি পেসার প্যাট কামিন্স। দ্বিতীয় ইনিংসে ইংল্যান্ড অলআউট হয়েছে ২১৮ রানে।
অস্ট্রেলিয়ার জস হ্যাজেলউড সর্বোচ্চ ৫ উইকেট নিয়েছেন। ২টি করে উইকেট কামিন্স ও লায়নের। মিচেল স্টার্ক নিয়েছেন একটি উইকেট।

প্রথম ইনিংসে ২৩৯ রানের ম্যারাথন ইনিংসের জন্য ম্যান অব দ্য ম্যাচ হয়েছেন অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক স্মিথ।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ

ইংল্যান্ড ১ম ইনিংসঃ ৪০৩/১০ (১১৫.১ ওভার) মালান ১৪০, বেয়ারস্টো ১১৯; স্টার্ক ৪/৯১, হ্যাজলউড ৩/৯২, কামিন্স ২/৮৪, লায়ন ১/৭৩

অস্ট্রেলিয়া ১ম ইনিংসঃ ৬৬২/৯ ডি. (১৭৯.৩ ওভার) স্মিথ ২৩৯, মার্শ ১৮১; অ্যান্ডারসন ৪/১১৬, ওকস ১/১২৮, ওভারটন ২/১১০, মইন ১/১২০

ইংল্যান্ড ২য় ইনিংসঃ ২১৮/১০ (৭২.৫ ওভার) ভিঞ্চি ৫৫, মালান ৫৪, কুক ১৪, ওকস ২২; হ্যাজলউড ৫/৪৮, স্টার্ক ১/৪৪, কামিন্স ২/৫৩, লায়ন ২/৪২

ফলাফলঃ অস্ট্রেলিয়া ইনিংস ও ৪১ রানে জয়ী।

সিরিজঃ অস্ট্রেলিয়া ৩-০ ব্যবধানে এগিয়ে।

ম্যাচ সেরাঃ স্টিভেন স্মিথ (অস্ট্রেলিয়া)।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে সিরিজ ভারতের

Read Next

টি-টেনের শিরোপা সাকিবের কেরালা কিংসের

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
0
Share