ড্র ম্যাচে প্রাণ দিয়েছে মার্শালের শতক

match report 6
Vinkmag ad

আগেই বোঝা হয়ে গিয়েছিল ম্যাচ চলছে ড্রয়ের পথে। শেষদিনে তাই রাজশাহী আর ঢাকা মেট্রোর খেলোয়াড়রা ব্যস্ত ছিলেন ব্যক্তিগত অর্জনে। ড্র ম্যাচে মার্শাল আইয়ুব প্রাণ জুগিয়েছেন দারুণ এক শতক হাঁকিয়ে। সানজামুল ইসলামও পাঁচ উইকেট পুরেছেন নিজের ঝুলিতে। তবে দুর্ভাগ্যের শিকার মেহরাব হোসেন জুনিয়র, বঞ্চিত হয়েছেন সেঞ্চুরি থেকে। 

ফাইল ছবি

জাতীয় লিগের দ্বিতীয় স্তরের ম্যাচে রাজশাহী প্রথম ইনিংসে সংগ্রহ করেছিল ২২০ রান। জবাবে ঢাকা মেট্রো স্কোরবোর্ডে ৯ উইকেটে ৩২৯ রান তুলে ঘোষণা করে ইনিংস। দ্বিতীয় ইনিংসে নেমে রাজশাহী যতক্ষণে খেলেছে তিন ওভার ততক্ষণে আলোর স্বল্পতা ছেয়েছে মাঠ জুড়ে। ফলাফল তাই ড্র।

খুলনায় শেখ আবু নাসের স্টেডিয়ামে মার্শাল আইয়ুব আর মেহরাব নেমেছিলেন দিনের সূচনায়। লাঞ্চ আর তারপরের অনেকটা সময় এই দুজনের ব্যাটে এগিয়েছিল ঢাকা মেট্রো। পাল্লা দিয়ে দুজনই খেলছিলেন সমানতালে। ভাগ্যটা মার্শালের পক্ষে গেলেও মেহরাব ছিলেন দুর্ভাগা।

সাজঘরের পথে যখন হাঁটছিলেন মেহরাব ১৭তম প্রথম শ্রেণির শতক থেকে তখন মাত্র ১১ রান দূরে দাঁড়িয়ে তিনি। অন্যপাশে ২৩৩ বলে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে নিজের ১৫তম শতক তুলে মার্শাল বিদায় নিয়েছেন ১৩১ রান করে। ১৩ চার দুই ছয়ে সাজানো ছিল মার্শালের ইনিংসে।

শেষদিকে ঝড়োগতির ব্যাটিংয়ে ব্যস্ত হন ডলার মাহমুদ। তার ৪৪ বলে ৪৪ রানের ইনিংসটা থামিয়ে অবশ্য সানজামুল তুলে নিয়েছেন প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে ১২তম পাঁচ উইকেট শিকার।

মেট্রোর ইনিংস ঘোষণার পরে ব্যাটিংয়ে নেমে রাজশাহী হারিয়ে ফেলে নাজমুল হোসেন শান্তকে। চারিদিক এরপরেই ভরে যায় আঁধারে। কর্তব্যরত আম্পায়াররা ম্যাচের ইতি টানেন সেখানেই। শতকের সুবাদে ম্যাচ সেরা নির্বাচিত হন মার্শাল আইয়ুব।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ডঃ 

রাজশাহী ১ম ইনিংসঃ ২২০

ঢাকা মেট্রো ১ম ইনিংসঃ ৩২৯/৯ (ইনিংস ঘোষণা; ১২০ ওভার) মার্শাল ১৩১, মেহরাব জুনিয়র ৮৯, ডলার ৪৪। সানজামুল ৫/১১৪, সাকলাইন ২/১০৭

রাজশাহী ২য় ইনিংসঃ ১১/১ (৩ ওভার) শান্ত ৬, মিজানুর ৫*। ডলার ১/১০

ফলাফলঃ ম্যাচ ড্র।

ম্যান অফ দ্যা ম্যাচঃ মার্শাল আইয়ুব (ঢাকা মেট্রো)।

৯৭ প্রতিবেদক

Read Previous

খুলনার মাটি কামড়ানো ড্র

Read Next

মরকেলের পরিবর্তে প্যাটারসন

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
0
Share