ইংলিশদের সিরিজ জয়ে বৃথা গেলো লুইসের শতক

match report 27
Vinkmag ad

ক্যারিবীয়ান ওপেনার এভিন লুইস রিটায়ার্ড হার্ট হয়ে মাঠ ছেড়েছিলেন ১৭৬ রান করে। আর বোলিংয়ে প্রথম ৫ উইকেট শিকার করেন আলজারি জোসেফ। ৩৫৬ রানের বিশাল স্কোর গড়েও বৃষ্টি আইনে ৬ রানে জয় লাভ করে ইংল্যান্ড। একই সাথে চতুর্থ ওয়ানডে শেষে এক ম্যাচ হাতে রেখেই ৩-০তে সিরিজও নিজেদের করে নেয় স্বাগতিকরা। 

luis

নির্ধারিত ৫০ ওভার শেষে ৫ উইকেটে ৩৫৬ রান করে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ৩৫.১ ওভারে ৫ উইকেটে ২৫৮ রান করার পর বৃষ্টি শুরু হলে ডাকওয়ার্থ-লুইস মেথডে জয় পায় ইংলিশরা। টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে লুইসের সেঞ্চুরিতে পাহাড়সম লক্ষ্য দিয়েছিল সফরকারীরা। স্ট্রেচারে করে মাঠের বাইরে যাওয়ার আগে এই ওপেনার ১৩০ বলে ১৭টি চার ও ৭টি ছয়ের মারে খেলেন ১৭৬ রানের অপরাজিত ইনিংস।

আরেক ওপেনার ক্রিস গেইল ২ রানে বিদায় নেন। মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যানরা কেউই দাঁড়াতে পারেননি। অধিনায়ক জেসন হোল্ডার করেন দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রান। ৬২ বলে ৭৭ রানের কার্যকরী ইনিংস খেলেন এই অলরাউন্ডার। এছাড়া জেসন মোহাম্মদের ব্যাট থেকে আসে ৪৬ রান। ইংল্যান্ডের হয়ে সর্বোচ্চ ৩টি উইকেট নিয়েছেন ক্রিস ওকস।

বিশাল লক্ষ্যমাত্রার সামনে ব্যাট করতে নেমে ইংল্যান্ডের শুরুটা হয়েছিল অসাধারণ। ওপেনিং জুটিতেই ইংলিশদের বোর্ডে জমা হয় ১২৬ রান। বেয়ারস্টো ৩৯ রান করে বিদায় নিলেও আরেক ওপেনার জেসন রয় ৬৬ বলে ১১ চার ও ২ ছক্কায় খেলেন মারমুখী ৮৪ রানের ইনিংস। এরপর জোসেফের বোলিং তোপে ভেঙে পড়ে ইংলিশদের ব্যাটিং লাইন আপ।

এরপর ইনিংসের মাঝে হাল ধরেন যশ বাটলার ও মঈন আলী। বাটলার ৩৫ বলে ৪৩ রান ও মঈন ২৫ বলে ঝড়ো ৪৮ রানে অপরাজিত থাকেন। ষষ্ঠ উইকেটে তাদের জুটিতে ম্যাচে ফিরে আসে ইংল্যান্ড এবং বৃষ্টি শুরুর আগে ওভার ও উইকেটের হিসাবে এগিয়ে থাকে স্বাগতিকরা।

ক্যারিবীয়দের হয়ে দুর্দান্ত বোলিং করেন জোসেফ। ৮.১ ওভার বল করে ৫৬ রানের খরচায় ইংল্যান্ডের পাঁচ উইকেটের সবকটিই শিকার করেন তিনি। ইংল্যান্ড ম্যাচ জিতলেও ম্যাচ সেরা হয়েছেন ক্যারিবীয় ওপেনার লুইস।

 

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

ছোট মাঠে সাকিবহীন বাংলাদেশের কঠিন চ্যালেঞ্জ

Read Next

টস জিতে বোলিংয়ে মুশফিকরা, নেই সৌম্য

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
0
Share