প্রস্তুতিতে সন্তুষ্ট বাংলাদেশ

featured photo1 1 82
Vinkmag ad

তিনদিনের প্রস্তুতি ম্যাচে এসেছে ড্র। প্রথম টেস্টের ভেন্যু পচেফস্ট্রমে পৌঁছে গেছে দল। দিন দুইয়ের অনুশীলনও হয়ে গেছে সেনওয়েস পার্কে। আর সেই অনুশীলন পর্ব নিয়ে সন্তুষ্ট টাইগাররাও। 

দিন দশেক আগে দক্ষিণ আফ্রিকায় পৌঁছেছে বাংলাদেশ দল। জোহানেসবার্গ থেকে বেনোনিতে চলে যেতে হয়েছে প্রস্তুতি ম্যাচে অংশ নিতে। সেখানে দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রিত একাদশের সঙ্গে তিনদিনের প্রস্তুতি ম্যাচ শেষ করে বাংলাদেশ এখন পচেফস্ট্রমে। সিরিজ শুরু আগে প্রস্তুতিটা ভালই হয়েছে বলে জানিয়েছেন টাইগার ব্যাটসম্যান ইমরুল কায়েস।

সম্পর্কিত ছবি
ছবিঃ সংগৃহীত

“যেহেতু এক সপ্তাহ আগে দক্ষিণ আফ্রিকায় এসেছি আমরা, প্রস্ততি ম্যাচও খেলেছি, সবকিছু মিলিয়ে ভালো প্রস্তুতি হয়েছে। প্রস্তুতি ম্যাচটি থেকে আশা করি সবার আত্মবিশ্বাস আরও বেড়েছে। প্রস্তুতি তাই বেশ ভালো।”

প্রস্তুতি ম্যাচে রান এসেছে ইমরুলের ব্যাটে। প্রথম ইনিংসে অর্ধশতক বঞ্চিত হলেও দ্বিতীয় ইনিংসে তামিমের চোটে উদ্বোধন করতে নেমে দেখা পান ফিফটির। দুই ইনিংসে টানা দুই অর্ধশতক গড়েছেন সাব্বির রহমান। এছাড়া রান পেয়েছেন মুমিনুল হক এবং কাপ্তান মুশফিকুর রহিম।

শেষ ১৫ টেস্ট ইনিংসে ইমরুলের ব্যাটে সম্বল মাত্র একটি অর্ধশতক। তাই প্রস্তুতি ম্যাচের পারফর্ম্যান্স মূল ম্যাচে ভাল করতে ইমরুলকে জোগাচ্ছে আত্মবিশ্বাস।

“রান যেখানেই করি না কেন, আত্মবিশ্বাস বাড়ে। বাংলাদেশে রান করি বা এখানে, নিজের কাছে ভালো লাগে। আশা করি ভালো কিছু হবে।”

Imrul kayes practise test এর ছবি ফলাফল
ছবিঃ সংগৃহীত

পচেফস্ট্রমের অতীত ইতিহাসটা বাংলাদেশকে মোটেও আশা জোগাবেনা এমনটা বলা বাঞ্ছনীয়। এই মাঠে গড়ানো একমাত্র টেস্টে ২০০২ সালে যে বাংলাদেশ স্বাগতিকদের কাছে হেরেছে তিনদিনে এবং ইনিংস ব্যবধানে! শুধু তাই না, দক্ষিণ আফ্রিকায় বাংলাদেশ নিজেদের খেলা সব টেস্টেই হেরেছে ইনিংস ব্যবধানে।

তবে সেই বাংলাদেশ আর এই বাংলাদেশ তফাৎটা আকাশ-পাতাল। মুশফিকুর রহিমের দলের সামনে তাই নতুন চ্যালেঞ্জ, গত দুই বছরের টেস্টের সাফল্যের পারদটা উর্ধ্বগামী রেখেই শেষ করতে হবে টেস্ট সিরিজ।

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

শুরুটা বাংলাদেশ-দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজ দিয়েই

Read Next

চলে যাওয়া মানেই ফিরে আসা…

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

Total
0
Share