অল্পদিনে অনেক কিছু শিখলেন ডোমিঙ্গো

কোচ হিসেবে নিজের প্রথম পরীক্ষায় পুরোপুরি ব্যর্থ, আফিগানিস্তানের কাছে একমাত্র টেস্টে বিপর্যস্ত বাংলাদেশ। যদিও আক্ষরিক অর্থে মাত্রই দলের সাথে যুক্ত হওয়া রাসেল ডোমিঙ্গোকে একটি মাত্র টেস্ট দিয়ে বিবেচনা করার সুযোগ নেই। আজ(১২ সেপ্টেম্বর) মিরপুরে আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে নিজেই জানিয়েছে খেলোয়াড়দের মত কোচদেরও অনেক উন্নতির জায়গা থাকে, তিনিও শিখছেন।

আগামীকাল (১৩ সেপ্টেম্বর) থেকে শুরু হচ্ছে আফগানিস্তান, বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়েকে নিয়ে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজ। উদ্বোধনী ম্যাচে প্রথমদিন মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়ে। বাংলাদেশের হয়ে বিকেল সাড়ে পাঁচটার আগেই আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে হাজির কোচ রাসেল ডোমিঙ্গো। কথা বলেছেন দলের সম্ভাবনা, নিজের অনুধাবন ও শিক্ষা নিয়ে।

আফগানদের বিপক্ষে সাকিবের ইচ্ছেতেই পেসারবিহীন একাদশ নিয়ে নামে বাংলাদেশ। কোচ হিসেবে তার ভূমিকা কি ছিল? এমন প্রশ্নে প্রধান কোচের উত্তর,

“হ্যাঁ সাকিব আমাকে সিদ্ধান্তে অন্তর্ভুক্ত করেছে। তবে যেহেতু সে পরিস্থিতির সাথে আগে থেকেই পরিচিত সেক্ষেত্রে তার সিদ্ধান্তকে প্রাধান্য দিয়ে পেছন থেকে আমি শতভাগ সমর্থন জুগিয়েছি। মাত্র তিন সপ্তাহ হল আমি যোগ দিলাম অনেক কিছু পর্যবেক্ষণ করছি।”

দল নিয়ে তার এখনো অবধি ধারণা কি জানতে চেয়ে করা সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে ডোমিঙ্গো বলেন,

“আমি কেবল তাদের দেখভাল শুরু করেছি। এই যেমন টি-টোয়েন্টি সিরিজের জন্য তিনজন নতুন মুখের সাথে পরিচয়। তরুণ মিশু, আফিফ হোসেন ও মেহেদী হাসান তারা সবাই অসাধারণ, শুধু দরকার সঠিক পরিচর্যার। হ্যাঁ আমাদের টেস্ট ম্যাচটি ভালো যায়নি, তবে আফিগানিস্তান দুর্দান্ত খেলেছে স্বীকার কর‍তে হবে। তরুণ ও সিনিয়রদের সমন্বয়ে অসাধারণ খেলেছে। টেস্ট নিয়ে বলতে গেলে আমাদেরও অনেক কিছু ভাবার আছে”

লম্বা সময় ধরে ব্যর্থতার বৃত্তে ঘুরপাক খেতে থাকা বাংলাদেশ কি নিজেদের ভাগ্য বদলাতে পারবে? রাসেল ডোমিঙ্গো বলছেন টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে কিছুই নিশ্চিত নয়,

”আগামীকাল দিনটি হয়তো আমাদের জন্য ভালো হতে পারে। তবে টি-টোয়েন্টি এমন ফরম্যাটের খেলা যেখানে যেকোন দল যেকাউকে হারিয়ে দিতে পারে। সুতরাং এখানে সাফল্যের নিশ্চয়তা দেওয়া অসম্ভব। তবে আমরা আমাদের সেরাটা দিয়েই ভালো কিছুর চেষ্টা করবো।”

এদিকে কোচ হিসেবে এমন বাজে শুরুর পর নিজের প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে টাইগারদের হেডমাস্টার জানান,

“খেলোয়াড়দের মত কোচদেরও অনেক উন্নতির জায়গা আছে। দিনশেষে নিজের সাথে বসে ভাবতে হয় সব ঠিকঠাক চলছে কিনা। তিন সপ্তাহ হল দলের সাথে আছি, পরবর্তী সিরিজের আগে অনেক কিছু শিখলাম। আশাকরি এসব পরের সিরিজে বেশ কাজে দেবে।”

৯৭ ডেস্ক

Read Previous

বাংলাদেশকে হারানো কঠিন নয়ঃ হ্যামিল্টন মাসাকাদজা

Read Next

কাঁদলেন নাফিসা কামাল, থাকতে চান বিপিএলে

Leave a Reply

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।